advertisement
আপনি দেখছেন

করোনাকালে স্বাস্থ্যখাতের দুর্নীতি নিয়ে যখন সর্বত্র আলোচনা চলছে, তখন লালমনিরহাটে মাটির নিচ থেকে উদ্ধার করা হল বিপুল পরিমান সরকারি ওষুধ। গতকাল সন্ধ্যায় শহরের ওয়্যারলেস কলোনী এলাকার টাউন ফার্মেসির মালিক সারাফাত আলীর বাড়ির পেছনে মাটি খুড়ে এসব ওষুধ বের করে আনে সদর থানা পুলিশ। এর আগে আরো দুইবার ওই এলাকার মাটির নিচ থেকে সরকারি ওষুধ উদ্ধার করা হয়েছে।

lalmoni medicine

গত ২৩ জুন শহরের ড্রাইভারপাড়া এলাকায় অভিযান চালায় পুলিশ। সেখানেও একটি বাড়ি থেকে ২৫ প্রকারের সরকারি ওষুধ উদ্ধার করা হয়। ওই ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয় আব্দুর রাজ্জাক রেজা ও তার স্ত্রী নিলুফা ইয়াসমীনকে। তার দুইদিন পর অভিযান চালানো হয় টাউন ফার্মেসিতে। সেখান থেকেও বিপুল পরিমান সরকারি ওষুধ উদ্ধারের পর ফার্মেসির মালিক সারাফাত আলীকে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে পাঠানো হয়।

লালমনিরহাট সদর থানার ওসি মাহফুজ আলম জানান, এখানে সরকারি ওষুধ চুরির একটা বড় সিন্ডিকেট আছে। আমরা তা ভেঙে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। যে বা যারা এই কাজে জড়িত থাকবে তাদের সবাইকে গ্রেপ্তার করা হবে। এখন পর্যন্ত ৪-৫ বস্তা সরকারি ওষুধ জব্দ করা হয়েছে। আমাদের জানামতে, আরো ওষুধ আছে অনেকের দখলে। গ্রেপ্তার হওয়া অভিযুক্তদের জবানবন্দি অনুযায়ী আরো অভিযান চালানো হবে।

lalmoni thana

ওসি মাহফুজ আলম আরো জানান, মূলত সরকারি হাসপাতালের স্টোরকিপারদের মাধ্যমেই ওষুধগুলো বাইরে চলে আসে। তেমন কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। তারা এখন পলাতক আছেন।

sheikh mujib 2020