advertisement
আপনি দেখছেন

করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ আছে সকল প্রকার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। দফায় দফায় বাড়িয়ে ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত। পুরো শিক্ষা ব্যবস্থাই মুখ থুবড়ে পড়ার যোগাড়। এ অবস্থায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবিতে আজ বুধবার (১৬ জুন) বিক্ষোভ করে প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনগুলো। বিক্ষোভে বাধা দিয়েছে পুলিশ।

protest students

দুপুর ১টার দিকে মিছিলটি শুরু হয় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস থেকে। শিক্ষার্থীরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবি নিয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয় অভিমুখে যাচ্ছিলেন। এ সময় সড়কে ব্যারিকেড দিয়ে তাদেরকে আটকে দেয় পুলিশ। তারপর সেখানে বসেই শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করে এবং তাদের দাবি পেশ করে।

সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সভাপতি আল কাদেরী জয় বলেন, অতি দ্রুত সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দিতে হবে। বিশেষ বিবেচনায় সবার আগে শিক্ষার্থীদের টিকা দিতে হবে। এ নিয়ে আমরা সরকারের মধ্যে কোনো উদ্বেগ দেখতে পাচ্ছি না। সবকিছু চলছে, শুধু বন্ধ আছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। এটা কেন?

তিনি আরও বলেন, কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের আয়ের ওপর ১৫ শতাংশ করারোপ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এটা অবশ্যই বাতিল করতে হবে। শিক্ষা নিয়ে কোনো প্রকার বাণিজ্য চলবে না। এছাড়া করোনাকালে শিক্ষার্থীদের বেতনসহ অন্যান্য ফি মওকুফ করতে হবে।