advertisement
আপনি দেখছেন

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক জানিয়েছেন, কোভিড-১৯ এর টিকা (ভ্যাকসিন) দেওয়ার ক্ষেত্রে বয়স্কদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। একই সঙ্গে তারা টিকা কেন্দ্রে জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) নিয়ে গেলেই টিকা পাবেন। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আজ শনিবার বিকেলে জাপান থেকে আসা উপহারের অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার চালান গ্রহণ শেষে তিনি এসব কথা বলেন। টিকা গ্রহণের সময় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন উপস্থিত ছিলেন।

health minister dhaka airportঢাকা বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক

তিনি বলেন, সারাদেশের ইউনিয়ন পর্যায়ে আগামী ৭ আগস্ট থেকে করোনার টিকাদান কর্মসূচি শুরু হচ্ছে। এক্ষেত্রে বয়স্কদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। এমনকি কোনো ব্যক্তির যদি জাতীয় পরিচয়পত্র না থাকে, সেক্ষেত্রেও বিশেষ ব্যবস্থায় তাকে টিকা দেওয়া হবে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরো বলেন, টিকাদান কেন্দ্রে বয়স্করা যদি শুধু এনআইডি নিয়েও আসেন, তাহলেও তাদের টিকা দেওয়া হবে। আবার কারো যদি জাতীয় পরিচয়পত্র নাও থাকে, সেক্ষেত্রেও বিশেষ ব্যবস্থায় তাদের টিকা দেওয়া হবে। কারণ ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে বেশি মারা যাচ্ছেন বয়স্করাই। আমাদের উদ্দেশ্য হলো মৃত্যুর হার কমানো। সে কারণেই আমরা এই কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছি।

health minister recieved japan vaccজাপান থেকে আসা টিকা গ্রহণ করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক

প্রসঙ্গত, জাপান সরকারের উপহার হিসেবে দেওয়া অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার কোভিড-১৯ প্রতিরোধী টিকার (ভ্যাকসিন) দ্বিতীয় চালান আজ দেশে এসে পৌঁছায়। এই চালানে রয়েছে ৭ লাখ ৮১ হাজার ৩২০ ডোজ টিকা। এর আগে গত ২৪ জুলাই প্রথম ধাপে কোভ্যাক্সের মাধ্যমে জাপান থেকে ২ লাখ ৪৫ হাজার ২০০ টিকা বাংলাদেশে আসে। এ ছাড়া আগামী ৪ আগস্ট জাপান থেকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকার তৃতীয় চালান আসার কথা রয়েছে। ওই চালানে প্রায় ৬ লাখ টিকা আসবে বলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে।