advertisement
আপনি দেখছেন

চেক প্রতারণার মামলায় এক বছরের সাজা হয়েছিল এক ব্যক্তির। সেই সাজা এড়াতে ৮ বছর পালিয়ে ছিলেন ওই ব্যক্তি। কিন্তু তাতেও শেষ রক্ষা হল না। ২০১৩ সালের ওই মামলার ঘটনায় আজ রোববার, ১০ অক্টোবর, পুলিশের হাতে ধরা পড়েছেন জয়নুল আবেদীন জনি ওরফে তৌফিক (৩৯) নামে ওই ব্যক্তি।

zoynul abedin towfiqজয়নুল আবেদীন জনি ওরফে তৌফিক

জানা যায়, রাজধানীর বনানী এলাকা থেকে আজ রোববার জয়নুল আবেদীন জনি ওরফে তৌফিককে গ্রেপ্তার করা হয়। তার বাড়ি চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার বেলগাছি গ্রামে। গ্রেপ্তারের পর আজ বিকেলেই তাকে আদালতে সোপর্দ করে পুলিশ। পরে আদালত তাকে কারাগারে পাঠায়।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা, ওসি, মোহাম্মদ মহসীন। তিনি জানান, জয়নুল আবেদীন জনি ওরফে তৌফিক ২০১০ সালে ঢাকায় পুরাতন গাড়ির ব্যবসা শুরু করেন। পরে ২০১২ সালে ঋণ নিয়ে সিলেটে ট্রান্সপোর্ট ও মোটর পার্টসের ব্যবসা শুরু করেন তিনি।

ওসি আরও জানান, ২০১৩ সালে গিয়ে তৌফিকের ঋণের পরিমাণ দাঁড়ায় প্রায় আড়াই কোটি টাকা। ঢাকা ও চুয়াডাঙ্গার আদালতে বিভিন্ন সময় তার বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি মামলা দায়ের করা হয়। পরে ওই বছরই তার সাজা হয়। সাজা ঘোষণার পর থেকেই পলাতক ছিলেন তিনি।

ওসি মোহাম্মদ মহসীন ওসি আরও জানান, জয়নুল আবেদীন জনির বিরুদ্ধে ৬টি সাজা পরোয়ানাসহ মোট ১০টি গ্রেপ্তারি পরোয়ানা রয়েছে।