advertisement
আপনি পড়ছেন

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, যবিপ্রবির জিনোম সেন্টারে ৪১ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৩৫ জনের করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছে। বাকিদের শরীরে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের উপস্থিতি পাওয়া গেছে। আজ রোববার এ তথ্য প্রকাশ করেন বিশ্ববিদ্যালয়টির একদল গবেষক।

omicron bangladeshওমিক্রন শনাক্ত, ফাইল ছবি

গবেষণা সূত্র জানায়, গত ৩১ ডিসেম্বর থেকে ১৯ জানুয়ারি পর্যন্ত ২৬ জন পুরুষ ও ১৫ জন নারীর নমুনার স্যাঙ্গার সিকুয়েন্সিং পূর্ণাঙ্গ জীবন রহস্য উন্মোচন করা হয়। এই ৪২ জনের মধ্যে ৩৫ জনের ওমিক্রন এবং বাকিদের ডেল্টা শনাক্ত হয়েছে।

এর আগে গত ১২ জানুয়ারি যবিপ্রবির জিনোম সেন্টারে ৩ জনের নমুনা পর্যালোচনায় ওমিক্রন শনাক্ত হয়েছিল। এ নিয়ে সেখানে এখন পর্যন্ত ৩৮ জনের শরীরে ভাইরাসটির উপস্থিতি পাওয়া গেলো।

genome centerযবিপ্রবি জিনোম সেন্টার, ফাইল ছবি

এ ছাড়া ৩৮ জনের নমুনার মধ্যে ৩৫ জনেরই স্পাইক প্রোটিনের স্যাঙ্গার সিকুয়েন্সিংয়ে ১২-১৩টি মিউটেশনের ওমিক্রন শনাক্ত করা হয়। এসব আক্রান্তের বয়স ২০-৭১ বছরের মধ্যে বলে জানিয়েছে গবেষণা দলটি।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন যবিপ্রবির অণুজীববিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান ও জিনোম সেন্টারের সহযোগী পরিচালক অধ্যাপক ড. মো. ইকবাল কবীর জাহিদ। তার নেতৃত্বে করোনা রোগীদের নমুনা পর্যালোচনা করছেন গবেষকরা।