advertisement
আপনি দেখছেন

নভেল করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে এখন পর্যন্ত ১ হাজার ২৩৮ জন বাংলাদেশি প্রবাসী প্রাণ হারিয়েছেন। আজ বুধবার পর্যন্ত বিভিন্ন দেশে থাকা বাংলাদেশের দূতাবাস, প্রবাসী কমিউনিটি ও আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সূত্রে এ তথ্য পাওয়া যায়।

us situationকরোনায় বিদেশে প্রাণ হারিয়েছেন ১২৩৮ বাংলাদেশি

জানা যায়, বিশ্বজুড়ে মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি বাংলাদেশি প্রবাসী প্রাণ হারিয়েছেন সৌদি আরবে। দেশটিতে আজ বুধবার পর্যন্ত অন্তত ৪১৫ জন বাংলাদেশি কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। এছাড়া প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন আরো কয়েক শ বাংলাদেশি।

সৌদি আরবের পরেই সবচেয়ে বেশি প্রবাসী বাংলাদেশির মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে যুক্তরাজ্যে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত অন্তত ৩০৬ জন বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন। এরপরই রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে অন্তত ২৭২ জন বাংলাদেশি প্রবাসী কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

coronaকরোনাভাইরাস- প্রতীকী ছবি

এছাড়া করোনাভাইরাসের আক্রান্ত হয়ে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অন্তত ১০৪ জন বাংলাদেশি প্রাণ হারিয়েছেন। কুয়েতে মারা গেছেন ৪৫ জন। ওমানে ২০ জন, কাতারে ১৮ জন, ইতালিতে ১৪ জন, বাহরাইনে ৯ জন, কানাডায় ৯ জন, সুইডেনে ৮ জন, ফ্রান্সে ৭ জন, স্পেনে ৫ জন বাংলাদেশি নাগরিক মারা গেছেন। এর বাইরে পর্তুগাল, লিবিয়া, গাম্বিয়া, মালদ্বীপ, দক্ষিণ আফ্রিকা ও কেনিয়ায় একজন করে বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে।

দেশের বাইরে প্রথম বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্তের খবর আসে সিঙ্গাপুর থেকে। এখন পর্যন্ত দেশটিতে ২৬ হাজারেরও বেশি বাংলাদেশি প্রবাসী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তবে দেশটিতে এখন পর্যন্ত কোনো বাংলাদেশি মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়নি।

এদিকে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন ৩৭ জন। এ সময়ের মধ্যে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৪৬২ জন। এ নিয়ে দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১ লাখ ২২ হাজার ৬৬০ জনে। মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১ হাজার ৫৮২ জনে।

sheikh mujib 2020