advertisement
আপনি দেখছেন

সতর্ক না হয়ে কোন কাজে হাত দিলেই সম্মুখীন হতে পারেন নানা দুর্ঘটনার। যা পরবর্তীতে বড় ধরনের বিপদের কারণ হয়ে দাড়াতে পারে। সম্প্রতি কাছের মানুষের অসতর্কতার ফলে মারাত্বক এক বিপদে পড়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডার বাসিন্দা ক্যাথরিন গেডোস। চোখে ড্রপের পরিবর্তে সুপার গ্লু দিয়ে হারাতে বসেছিলেন চোখের আলো।

kathrin gadow

দুই সন্তানের জননী ক্যাথরিন গেডোসের চোখে সামান্য একটু সমস্যা হওয়ার ফলে ড্রপ ব্যবহারে আগ্রহী হয়েছিলেন। কিন্তু ড্রপের বদলে ব্যবহার করেন সুপার গ্লু। ফলে ভয়াবহ এক অভিজ্ঞতার মধ্য দিয়ে যান তিনি। ৯দিন একেবারে আটকে ছিল চোখের পাতা। কোনক্রমেই তা খুলতে পারেন নি ফ্লোরিডার এ বাসিন্দা।

ঘটনাটির বর্ণনা দিতে গিয়ে ক্যাথরিন বলেন, 'কি একটা ছোট জিনিস ঢুকে গিয়েছিলো আমার চোখে। ফলে আমি চিৎকার করে বাড়ির সবাইকে আমার ব্যাগ থেকে চোখের ড্রপটি আনতে বলেছিলাম। কিন্তু তারা আমাকে এনে দেয় সুপার গ্লু। যা চোখে দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রচন্ড জ্বালাপোড়ায় চিৎকার করতে থাকি আমি। পরে তারা ডাক্তারের কাছে ফোন করে।'

কিন্তু নিজের চিকিৎসা খরচ বহনের কোন সামর্থই ছিলনা ক্যাথরিনের। পাশাপাশি ছিল না কোন চিকিৎসা ইন্সুরেন্সও। ফলে ডাক্তার তার চিকিৎসা না করেই ফিরিয়ে দেয়। এতে করে ৯ দিন তাকে চোখের পাতা বন্ধ করেই কাটাতে হয়।

পরবর্তীতে স্থানীয় একটি টিভি চ্যানেল ক্যাথরিনের বিষয়টি প্রচার করলে ডাক্তারগণ তার চিকিৎসা দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেন। ফলে নয় দিনের মাথায় এসে ওই চোখ দিয়ে তিনি দেখতে পান পৃথিবীর আলো।

 

আপনি আরো পড়তে পারেন 

গেম খেলেই কোটিপতি!

হাঁচির কারণে জীবন অতিষ্ট

ইঁদুর মেরে চ্যাম্পিয়ন!

sheikh mujib 2020