advertisement
আপনি পড়ছেন

জ্বালানি তেলের দাম বাড়ার প্রেক্ষাপটে আলোচনার মাধ্যমে বাসের ভাড়া বাড়ানো হয়েছে। তবে সড়কে অনেক বাসে যে হারে ভাড়া নেওয়া হচ্ছে, সেটা সরকার নির্ধারিত টাকার চেয়ে বেশি। এ নিয়ে প্রতিনিয়তই যাত্রীদের সঙ্গে ঘটছে তর্কবিতর্ক, বসচা আর অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা।

brta bdবিআরটিএ

এই পরিস্থিতিতে বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি, বিআরটিএ চেয়ারম্যান হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছেন, মহানগরে চলাচল করা কোনো বাস যদি ওয়েবিলের নামে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করে এবং দূরপাল্লার বাস যদি টিকিটির দাম অতিরিক্ত নেয়, তাহলে ডাম্পিংসহ রুট পারমিট বাতিল করা হবে।

অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হচ্ছে, এমন অভিযোগ পেয়ে আজ শুক্রবার (১২ আগস্ট) বিআরটিএ চেয়ারম্যান নুর মোহাম্মদ মজুমদার মহাখালী বাস টার্মিনাল পরিদর্শনে আসেন। সেখানে গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে এই হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করেন তিনি।

নুর মোহাম্মদ মজুমদার বলেন, দাম বেড়েছে জ্বালানি তেলের, অথচ গ্যাসে চলা অনেক গণপরিবহন ভাড়া বাড়িয়ে দিয়েছে। যাত্রীদেরকে এ ব্যাপারে সচেতন হতে হবে। ভাড়া নিয়ে নৈরাজ্য বন্ধে মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করছে বিআরটিএ। ভবিষ্যতে এই কোর্টের সংখ্যা আরও বাড়ানো হবে।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর