আপনি পড়ছেন

টুইটার নিয়ে ভালোই খেলায় মজেছেন ইলন মাস্ক। এই বিলিওনিয়ার এবার বাতিল করে দিয়েছেন দুনিয়ার অন্যতম প্রধান সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারের পরিচালনা পর্ষদ। জানা যাচ্ছে, টুইটার বোর্ডের একমাত্র সদস্য এখন ইলন মাস্কই!

elon musk offers to buy twitterইলন মাস্ক

সিকিউরিটি অ্যান্ড অ্যাক্সচেঞ্জ কমিশনের তথ্য মতে, মাস্ক একাই টুইটার বোর্ডের সদস্য। মাস্ক অবশ্য জানিয়েছেন এই পদক্ষেপটি কোনো স্থায়ী উদ্যোগ নয়। অর্থাৎ পরিচালনা পর্ষদ হয়তো শিগগিরই পুনর্গঠিত হতে পারে।

টুইটারের মালিকানা কিনে নেওয়ার এক সপ্তাহের মধ্যেই নানা রকম সংবাদ ছড়িয়েছেন মাস্ক। এর মধ্যে একটি হলো ভেরিফাইড ব্যবহারকারীদের থেকে মাসে ২০ ডলার নেওয়া; যদিও সংবাদটির সত্যতা এখনো মিলেনি।

টুইটার সাধারণত হাই-প্রোফাইল ব্যবহারকারীদের একটি ব্লু টিক দেয়, যা তাদেরকে সাধারণ ব্যবহারকারীদের সামনে ভেরিফাইড ব্যবহারকারী হিসেবে উপস্থিত করে।

মাস্ক জানিয়েছেন, ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়াটি ঢেলে সাজানো হচ্ছে। কিন্তু আসন্ন প্রক্রিয়াতে কি গ্রাহকদের কাছ থেকে টাকা নেওয়া হবে— এই প্রশ্নের কোনো উত্তর তিনি দেননি।

এ দিকে মাস্ক টুইটার নিয়ে এতো ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন যে, তার অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের বিনিয়োগকারীরা নিশ্চয় বিষয়টি নিয়ে চিন্তিত। গার্ডিয়ান এক প্রতিবেদনে বলেছে, মাস্ক টুইটার কিনেছেন বটে, তবে এই বিলিওনিয়ারের কোনো ধারণাই নেই যে তিনি ঠিক কিভাবে এত বড় একটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম নিয়ন্ত্রণ করবেন।

গার্ডিয়ানের মতে, টুইটার নিয়ে মাস্কের এত মাতামাতি আসলে তার সময় নষ্ট করা!