আপনি পড়ছেন

চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে বাংলাদেশের যাত্রা থেমেছে গ্রুপ পর্বেই। আসরে লাল সবুজের দলের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেছেন নাজমুল হোসেন শান্ত। যদিও স্ট্রাইকরেট নিয়ে সমালোচকদের কটু কথা শুনতে হয়েছে রাজশাহীর এই তরুণ ব্যাটারকে। তবে ওসব কথায় কর্ণপাত করেননি তিনি।

nazmul hossain shanto fiftyনাজমুল হোসেন শান্ত

গ্রুপ পর্বের পাঁচ ম্যাচে শান্তর সংগ্রহ ১৮০ রান। গড় ৩৬। স্ট্রাইকরেট ১১৪'র বেশি। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ৭১ রানের ইনিংসটা তার সর্বোচ্চ। এছাড়া পাকিস্তানের বিপক্ষেও পান অর্ধশতকের দেখা। টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকদের তালিকার ৯-এ আছেন এই ওপেনার।

গ্রুপ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচেও শেষ চারের আশা টিকে ছিল বাংলাদেশের সামনে। কিন্তু অ্যাডিলেড ওভালে অনুষ্ঠিত ম্যাচে পাকিস্তানের কাছে ৫ উইকেটে হেরে টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নেয় সাকিব আল হাসানের দল। এ যাত্রায় ব্যর্থ হলেও অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে ২০২৪ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে দারুণ কিছু করার আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন শান্ত।

বিশ্বকাপ মিশন শেষে গতকাল রাতে ঢাকায় পা রেখেছে বাংলাদেশ দল। বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের সাথে আলাপচারিতায় শান্ত বলেন, 'আমাকে নিয়ে অনেক কথা হয়েছে। আসলে আমি ওদিকে ফোকাস দেইনি। খেলাতেই আমার মনোযোগ ছিল। আলহামদুলিল্লাহ ভালো হয়েছে। তবে এখান থেকে যেন আরও ভালো করতে পারি সেই চেষ্টাই করবো।'

'এবার আমরা যেরকম ক্রিকেট খেলেছি সে আত্মবিশ্বাস সামনের বিশ্বকাপে কাজে দেবে। যদিও এ বিশ্বকাপে আমাদের আরও ভাল করার বড় সুযোগ ছিল। সামনের বিশ্বকাপে যেন আমরা এর থেকে ভালো করতে পারি সেটাই মাথায় থাকবে। আমাদের হাতে আরও দু বছর আছে। এই দুই বছর আমরা সেভাবেই প্রস্তুত হবো। সেটা যদি করতে পারি তাহলে সামনের বিশ্বকাপে আরও ভালো ফলাফল পাবো।' যোগ করেন শান্ত।