আপনি পড়ছেন

২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সময় বেশ ফর্মে ছিলেন বাবর আজম। সে সময় তার প্রশংসায় পঞ্চমুখ ছিলেন সবাই। কিন্তু এরপর থেকে ধীরে ধীরে তার গ্রাফ নামতে থাকে নিচের দিকে। ফলে সমালোচনার শিকার হতে থাকেন তিনি। নিজের ব্যাটিং নিয়ে যেমন সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন, তেমনি কথা শুনতে হয়েছিল অধিনায়কত্ব নিয়েও। গতকাল বুধবার সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে ফাইনালে ওঠার পর দীর্ঘদিন পর বিষয়গুলো নিয়ে মুখ খোলেন বাবর। সবাইকে বলেছেন, জয়টা উপভোগ করুন।

babar azam 14বাবর আজম

এশিয়া কাপ, দেশের মাটিতে ইংল্যান্ডের সাথে দ্বিপক্ষীয় সিরিজ, বিশ্বকাপ শুরুর আগে ত্রিদেশীয় টুর্নামেন্ট কোনোটাতেই উল্লেখযোগ্য পারফরম্যান্স দেখা যায়নি বাবরের কাছ থেকে। এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও ছন্দে ছিলেন না তিনি। বিশেষ করে ভারত ও জিম্বাবুয়ের কাছে শেষ বলে হেরে যাওয়া এবং ওপেনিং জুটি থেকে তার সরে না আসার বিষয়টি সমালোচকদের মূল আলোচ্য বিষয়ে পরিণত হয়। তবে ম্যানেজমেন্ট ভরসা রেখেছিল তার ওপর। নতুন কারও নামও যেমন অধিনায়কত্বের জন্য ওঠে আসেনি, তেমনি ওপেনিং জুটিতেও অন্য কাউকে তুলে আনা হয়নি।

বুধবার সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডকে ৭ উইকেটে হারিয়ে দেওয়ার পরই বিষয়গুলো নিয়ে কথা বলেন বাবর আজম। বলেন, বিশ্বকাপের শুরু থেকে আমার সমালোচিত হয়েছে। সকলের নিজস্ব মতামত থাকতে পারে। কিন্তু কাউকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করা ঠিক নয়। ব্যক্তিগত আক্রমণ করা হলেও আমাদের আসলে কিছু করার থাকে না। তবে সব কিছু পেছনে এখন তো আমরা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে উঠেছি। সবাই খেলা উপভোগ করুন।

babar azam and rizwan battingবাবর আজম ও রিজওয়ান ব্যাটিং

তিনি আরও বলেন, অনেকে টেলিভিশন চ্যানেলে বসে আমাদের সমালোচনা করেন, এমনকি আমরা ভালো খেললেও তারা সমালোচনা চালিয়ে যান। তারাও আমাদের এই জয়টা উপভোগ করুন।

গত বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে বাবর আজম ও মোহাম্মদ রিজওয়ানের ওপেনিং জুটির ব্যাটিংয়েই জয়ে পেয়েছিল পাকিস্তান। এর পরেও এই জুটির ঝলক দেখা গেছে বারবার। অনেকবার তারা শত রানের পার্টনারশিপ করেছেন। বহুদিন পর তারা উভয়ে আবার একসাথে জ্বলে উঠেছেন। আবারও তাদের জুটি শতরান ছাড়িয়েছে। এই জুটিই গতকাল পাকিস্তানের জয়ের ভিত তৈরি করে দেয়।

ওপেনিং জুটিতে ১০৫ রান করেন। পরে বাবর ৪২ বলে ৫৩ রান করে এবং রিজওয়ান ৪৩ বলে ৫৭ রান করে আউট হন। ১৫ ম্যাচ পরে আবারো তাদের শতরানের পার্টনারশিপের ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে বাবর বলে, ব্যাপারটা আসলে তেমন কিছুই নয়। আমরা সঠিক সময়ের জন্য অপেক্ষা করছিলাম। তবে সব ম্যাচেই আমরা পারফর্ম করার চেষ্টা করি। কিন্তু সাফল্য ও ব্যর্থতা তো খেলারই অংশ।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর