আপনি পড়ছেন

২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপের দুঃস্বপ্নের হার দিয়ে মিশন শুরু করেছিল জার্মানি। সাড়ে চার বছর রাশিয়া বিশ্বকাপেও একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হলো। প্রথম ম্যাচে হেরে বসেছে জার্মানরা। বুধবার জাপানের বিপক্ষে এগিয়ে থেকেও ২-১ গোলে হেরে গেছে চারবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নরা। গত আসরে জাপানের ‘জাত ভাই’ দক্ষিণ কোরিয়াও একই পরিণতি দিয়েছিল তাদের।

germany coach hansi flickজার্মান কোচ: আমরা চাপে আছি

বিশ্বকাপে এশিয়ান কোনো দলের বিপক্ষে এনিয়ে টানা দুই ম্যাচ হারল ইউরোপিয়ান জায়ান্টরা। এবারের হারের জন্য নিজেদের দুষছেন জার্মানি কোচ হান্সি ফ্লিক। প্রথমার্ধের ৩৩ মিনিটে ইকেই গান্ডোগানের গোলে লিড নিয়েছিল জার্মানরা। ম্যাচের শেষ দিকে এসে খেই হারিয়ে ফেলে তারা। হজম করে পরপর দুই গোল।

বেঞ্চ ছেড়ে উঠে এসে গোল করেন রিতু দোয়ান ও তাকুমা আসানো। আট মিনিটের ব্যবধানে দুই বদলি খেলোয়াড়ের গোল হজম করে ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় জার্মানি। এ নিয়ে মৌলিক তিনটি টুর্নামেন্টে হার দিয়ে যাত্রা শুরু হলো তাদের। দুই বিশ্বকাপের মাঝে গত ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে ফ্রান্সের বিপক্ষে হেরেছিল তারা।

জাপানের বিপক্ষে আবারও বিশ্বকাপের গ্রুপপর্ব থেকে বিদায়ের আশঙ্কায় পড়ল জার্মানি। ম্যাচ শেষে দলটির কোচ ফ্লিক জানালেন চাপে আছেন তিনি। জার্মান কোচের ভাষায়, ‘এভাবে হেরে যাওয়ায় আমরা হতাশ। কোনো পয়েন্ট না পাওয়ায় আমরা এখন চাপে আছি। এ নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই। আমরা কেবল নিজেদের দোষারোপ করতে পারি।’

হতাশার কারণটাও পরিষ্কার করে বললেন ফ্লিক, ‘বিরতির আগ পর্যন্ত আমরা সঠিক পথে ছিলাম। ম্যাচের ৭৮ শতাংশ সময় বল আমাদের নিয়ন্ত্রণে ছিল এবং আমাদের ১-০ লিড ছিল। বিরতির পর আমাদের সামনো ভালো কয়েকটি সুযোগ এসেছিল। কিন্তু আমরা তা কাজে লাগাতে পারিনি। মানতে হচ্ছে জাপান আজ (বুধবার) আমাদের চেয়ে ভালো ছিল।’

আগামী রোববার স্পেনের বিপক্ষে টিকে থাকার লড়াইয়ে নামবে জার্মানি। এই ম্যাচের প্রতিপক্ষ টুর্নামেন্ট শুরু করেছে ৭-০ গোলের বিরাট জয় দিয়ে। স্পেনের বিপক্ষে তাই জয়ের বিকল্প নেই জার্মানদের। দলটির কোচ ফ্লিক শিষ্যদের উন্নতির তাগিদ দিলেন, ‘আমরা এমনকিছু ভুল করেছি যা আমাদের করা উচিত হয়নি। বিশেষ করে বিশ্বকাপের মতো টুর্নামেন্টে। আমাদের অবশ্যই উন্নতি করতে হবে।’