আপনি পড়ছেন

চলতি বছরের সেপ্টেম্বরে বাজারে এসেছে আইফোন ১৪। নিয়ম অনুসারে ২০২৩ সালে উন্মোচিত হবে আইফোন ১৫। অন্যান্য আইফোন মডেলের মতোই এই সিরিজেও থাকবে প্রো সংস্করণ। বিশ্লেষকরা বলছেন, আইফোন ১৪ প্রো’র তুলনায় অনেকাংশেই আলাদা হতে চলেছে পরবর্তী প্রজন্মের আইফোন ১৫ প্রো।

apple iphone 14যেসব চমক থাকতে পারে নতুন আইফোনে

অ্যাপল বিশ্লেষক মিং-চি কুও দাবি করেন, অ্যাপল ওয়াচ আল্ট্রার জন্য আইফোন প্রো ম্যাক্স মডেলের নাম বদলে প্রো আল্ট্রা করা হচ্ছে। মূলত একটা প্রিমিয়াম ফিল দিতেই ম্যাক্সের পরিবর্তে আল্ট্রা নাম রাখার চিন্তাভাবনা করেছে অ্যাপল।

বলা হয়, অ্যাপল ওয়াচ আল্ট্রার মতো নতুন আইফোন ১৫ প্রো মডেলেও টাইটানিয়াম বডি ধাকবে।

নতুন আইফোনের প্রো এবং প্রো ম্যাক্স সংস্করণে যান্ত্রিক ভলিউম ও পাওয়ার বাটনের বদলে আসতে পারে ‘সলিড-স্টেট’ টগল, আর এতে থাকবে ‘হ্যাপটিক ফিডব্যাক’ প্রযুক্তি।

মিং-চি কুও’র তথ্য অনুযায়ী, আইফোন ৭-এ সর্বপ্রথম আসা ‘সলিড-স্টেট হোম’ বাটনের মতো কাজ করতে পারে এসব টগল, যেগুলো শারীরিকভাবে চাপ দিয়ে নীচে নামানো না গেলেও ব্যবহারকারীর স্পর্শে কেঁপে ওঠে।

প্রথমবারের মতো কোনো আইফোনে ইউএসবি-সি চার্জিং পোর্ট থাকতে পারে। ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন সমস্ত ডিভাইসে এক চার্জার প্রয়োগের নীতিতে কাজ করছে। এর ফলেই এই সিদ্ধান্ত।

তথ্য অনুসারে, আইফোন ১৫ প্রো মডেলে থাকতে পারে পেরিস্কোপ লেন্স। পেরিস্কোপ লেন্স মূলত আলো বেন্ড করার জন্য আয়না বা প্রিজমের সংমিশ্রণ ব্যবহার করে। জানা যায়, অ্যাপল বছরের পর বছর ধরে তাদের আইফোন লাইনআপের জন্য পেরিস্কোপ লেন্স প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছে।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর