আপনি পড়ছেন

কাতার বিশ্বকাপের হট ফেভারিট ব্রাজিল। টুর্নামেন্টে তাদের শুরুটাও হয়েছে ফেভারিটের মতোই। বৃহস্পতিবার রাতে ‘জি’ গ্রুপের ম্যাচে সার্বিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়েছে সেলেকাওরা। দলের দুটি গোলই করেছেন রিচার্লিসন। কিন্তু ব্র্রাজিলের জয়োৎসব ফিকে হয়ে গেল প্রাণভোমরা নেইমার জুনিয়রের ইনজুরিতে।

panic in brazil as neymar cries on the bench following ankle injuryনেইমারের কান্না, ব্রাজিলের উদ্বেগ

বিশ্বকাপে নিজেদের শুরুর ম্যাচে নেইমার গোল পাননি নেইমার। ছিল না কোনো অ্যাসিস্টও। তবে দলের বেশির ভাগ আক্রমণের উৎস তিনিই ছিলেন। দারুণ খেলেছেন নেইমার। কিন্তু দুর্ভাগ্যক্রমে ম্যাচটা শেষ করে আসতে পারেননি পিএসজি সুপারস্টার। চোট নিয়ে বেরিয়ে যান মাঠ থেকে। তার পরিবর্তিত হিসেবে মাঠে নামেন অ্যান্তনি।

ম্যাচের ৭৯ মিনিটে গোড়ালির চোটে হঠাৎই মাটিতে বসে পড়েন নেইমার। তাকে কাতরাতে দেখা যায়। একটা পর্যায়ে তো স্ট্রেচারও আনা হয়েছিল তার জন্য। যদিও পায়ে হেঁটেই ডাগ আউটে চলে যান তিনি। এরপর বেঞ্চে বসে কাঁদতে দেখা গেল নেইমারকে। তার এই কান্না শিরোপা প্রত্যাশী ব্রাজিলের জন্য অস্বস্তির, বড্ড উদ্বেগের।

নেইমার অবশ্য সার্বিয়ানদের লক্ষ্যবস্তু হয়ে উঠেছিলেন শুরু থেকেই। তাকে কড়া ট্যাকল করেন নেমাঞ্জা গুডেলজ এবং নিকোলা মিলেঙ্কোভিচ। পরে নির্ধারিত সময়ের মিনিট দশেক আগে নেইমারকে মাঠ থেকে তুলে নেন ব্রাজিল কোচ তিতে। সেলেকাওদের উৎসবমুখর ডাগ আউটের ছবিটা হঠাৎই বদলে যায়।

অবশ্য ম্যাচ শেষে আশার কথা শুনিয়েছেন সার্বিয়ার বিপক্ষে দারুণ খেলা আরেক ফরওয়ার্ড ভিনিচিয়াস জুনিয়র। তিনি বলেছেন, ‘নেইমার চোট পেয়েছেন। আশা করছি এটা তেমন কিছু নয়।’ ভিনির ধারণা সত্যি হোক এটাই প্রত্যাশা বিশ্বজুড়ে কোটি কোটি ব্রাজিল ভক্তদের। সেলেকাওদের ‘হেক্সা’ মিশনে তিনিই যে সবচেয়ে বড় স্বপ্নদ্রষ্ট্রা।

নেইমারের এবারের কান্না মনে করিয়ে দিচ্ছে ২০১৪ বিশ্বকাপের কথা। ঘরের মাঠে আয়োজিত ওই আসরে কলম্বিয়ান ফুল-ব্যাক হুয়ান ক্যামিলো জুনিগার ভয়ঙ্কর ফাউলের শিকার হন তিনি। ওই সময় কোমাড়ে চোট পেয়েছিলেন নেইমার। তাকে ছাড়া ব্রাজিলও উঠতে পারেনি ফাইনালে। সেমিফাইনালে থেমে যায় পথচলা।

সেই ম্যাচটি আবার ব্রাজিলিয়ান ফুটবল ইতিহাসের আরেক বিপর্যয়। নেইমারবিহীন দলটি জার্মানির বিপক্ষে ৭-১ গোলে চূর্ণ হয়। ইনজুরির কারণে ওই ম্যাচে খেলতে পারেননি অধিনায়ক থিয়াগো সিলভা-ও। দুই বিভাগের গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়ের অনুপস্থিতির প্রভাব পড়েছে সেমিফাইনালের ফলে।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর