আপনি পড়ছেন

নতুন মৌসুম শুরু হয়েছে সবেমাত্র। এরই মধ্যে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের প্রধান কোচ হোসে মরিনহোর ভবিষ্যত নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়। ব্রিটিশ গণমাধ্যমের দাবি- যে কোনো সময় পর্তুগিজ কোচকে লাল কার্ড দেখিয়ে দিতে পারেন ক্লাবের নীতি নির্ধারকরা।

mourinho and zidane

অনেকদিন ধরেই দল গঠন নিয়ে অভিযোগ করে আসছেন ম্যানইউ কোচ মরিনহো। তবে প্রত্যক্ষভাবে ক্লাবকর্তাদের দিকে আঙুল না তুললেও আকারে-ইঙ্গিতে ঠিকই সেটা বুঝিয়ে দিচ্ছেন ‘স্পেশাল ওয়ান’। তাতে কোচ এবং ক্লাবকর্তাদের মনস্তাত্ত্বিক দ্বন্দ্বটা ক্রমশ দৃশ্যমান হয়ে উঠেছে।

ফুটবল বিশ্লেষকদের উৎকন্ঠা হচ্ছে এই ভেবে যে, কখন না আবার মরিনহোকে অব্যাহতি দিয়ে দেয় ম্যানচেস্টার জায়ান্টরা। তবে মৌকে সরিয়ে দিলেও ম্যানইউর হাতে এই মুহূর্তে কয়েকটা বিকল্পই আছে। এ যাত্রায় জিনেদিন জিদানের নামটা সবচেয়ে বেশি উচ্চারিত হচ্ছে।

রিয়াল মাদ্রিদকে আচমকা বিদায় জানানোর পর থেকেই প্রায় তিন মাস ধরে বেকার জীবন পার করছেন জিদান। কবে নাগাদ ‘জিজু’ ডাগ আউটে ফিরবেন এনিয়ে ভাবনার শেষ নেই ফুটবলপ্রেমীদের। এরই মধ্যে ফ্রেঞ্চ কোচকে মোটা অংকের প্রস্তাব দিয়ে বসেছে পরবর্তী বিশ্বকাপের আয়োজক কাতার।

অবশ্য জিদান ঝুলিয়ে রেখেছেন এশিয়ার মধ্যপ্রাচ্যের দেশটিকে। শেষ পর্যন্ত ফ্রেঞ্চ কিংবদন্তিকে কাতার পাবে কিনা সেটাও পড়ে গেছে সংশয়ের মুখে। জিদান যে ইংলিশ ফুটবলে আসার কথা ভাবছেন! এ যাত্রায় রিয়াল মাদ্রিদের প্রাক্তন কোচের পছন্দের শীর্ষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড।

ব্রিটিশ প্রচারমাধ্যমগুলো বলছে ম্যানইউর কোচ হওয়ার জন্য ক্লাবকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন। ইংলিশ ক্লাবটিও নাকি জিদানকে কোচ করার জন্য আগ্রহ দেখাচ্ছে। এই দুই পক্ষের মাঝে একটাই কাঁটা- মরিনহো। ম্যানইউর কিংবদন্তি ফুটবলার লি শার্ট আবার বলে দিলেন, ‘বড়দিনের আগেই মরিনহোকে সরিয়ে দেওয়া হবে।’

পর্তুগিজ কোচের সম্ভাব্য সেরা উত্তরসূরি হিসেবে শার্প আবার জিদানের নামও প্রস্তাব করছেন। তিনি বলেছেন, ‘মরিনহো আবারো পরীক্ষা দিচ্ছেন। এই ক্লাবে আসার পর তিনি কখনোই সুখী ছিলেন না। তার পরিবর্তে জিদানই সেরা বিকল্প হতে পারেন। কোচ হিসেবে তিনি সর্বোচ্চ পর্যায়ে আছেন এবং সাফল্যও পেয়েছেন।’

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর