আপনি পড়ছেন

প্রথম ইনিংসের ব্যাটিং বিপর্যয়ের কারণে শেষ পর্যন্ত বড় ব্যবধানেই হারতে হলো মুশফিকদের। ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে সিরিজের প্রথম টেস্টে কিংসটনে ১০ উইকেটে হেরেছে বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজের পর হার দিয়ে শুরু হলো দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজও। ম্যাচটি বাঁচাতে চেষ্টা করেছিলেন ব্যাটসম্যানরা। কিন্তু কাজ হয়নি। শেষ পর্যন্ত জুটেছে বড় হারই।

কিংসটন টেস্টের টসটা জিতেছিলেন মুশফিক। বাংলাদেশের এই ম্যাচে জয় বলতে ওই টসই। এরপর তাইজুল ইসলাম অভিষেক টেস্টে পাঁচ উইকেট নিয়েছেন, মুশফিকের ব্যাট থেকে এসেছে শতকও, কিন্তু বড় পরাজয়ের লজ্জা থেকে দলকে বাঁচাতে ব্যক্তিগত এই ঝলক কাজে লাগেনি। ম্যাচে সেঞ্চুরি পেলেও বড় হারের দায় এড়াতে পারবেন না মুশফিক। কারণ টস জয়ের পর তার ফিল্ডিংয়ে সিদ্ধান্তই মূলত ম্যাচ থেকে ছিটকে দিয়েছে বাংলাদেশকে।

প্রথম ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে ওয়েস্ট ইন্ডিজ তুলে ৪৮৪ রান। বড় রানের এই পাহাড়ের নিচে চাপা পড়ে তামিমরা তুলতে পেরেছেন মাত্র ১৮২ রান। প্রথম ইনিংসে ৩০২ রান পিছিয়ে পড়ায় ফলোঅনের শিকার হয়ে ফের ব্যাটিংয়ে নামে বাংলাদেশ। প্রথম ইনিংসের তুলনায় এবার কিছুটা খোলস ছেড়ে বেড়িয়েছিলেন ব্যাটসম্যানরা। ফলে ইনিংস হারের যে আশঙ্কা চোখ রাঙাচ্ছিলো তা সময়র সাথে সাথে মিলিয়ে যায়। কিন্তু খুব বেশি লক্ষ্য দাঁড় করানো যায়নি ক্যারিবীয়দের সামনে। মাত্র ১৩ রানের লক্ষ্য ক্যারিবীয়রা পেরিয়ে গেছে ২ ওভার চার বলে। বৃথা গেছে তাইজুল ও মুশফিকের কীর্তি।

সিরিজের পরের টেস্ট ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে।