আপনি পড়ছেন

অবৈধ বোলিং অ্যাকশনের দায়ে যেকোনো আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ হয়েছেন পাকিস্তানি অফস্পিনার সাঈদ আজমল। সম্প্রতি আইসিসির অনুমোদিত ল্যাবে তার বোলিং অ্যাকশনের বৈধতা পরীক্ষা করা হয়। পরীক্ষায় অকৃতকার্য হন আজমল। তার সব ধরনের ডেলিভারির ক্ষেত্রেই নিয়ম ভাঙার প্রমাণ পাওয়া গেছে। ফলে অ্যাকশন শোধরে আজমল আবার ক্রিকেটে ফিরতে পারবেন কিনা তা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়।

গতমাসে শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠেয় টেস্ট সিরিজে আজমলের বোলিংকে সন্দেহজনক বলে প্রতিবেদন দেন আম্পায়াররা। এরপরই আইসিসির নিয়ম অনুযায়ী অ্যাকশন শোধরানোর পরীক্ষায় যেতে হয় আজমলকে।

সাধারণত সুনির্দিষ্ট কিছু ডেলিভারির ক্ষেত্রে বোলাররা সন্দেহের আওতায় পড়ে যান। কিন্তু আজমলের বিষয়টি পুরোপুরি ভিন্ন। তার সব ধরনের বলই আইসিসির নিয়মের বাইরে। বোলিং করার স্পিনাররা তাদের হাত ১৫ ডিগ্রি পর্যন্ত বাঁকানোর অনুমতি পান। কিন্তু আজমল তার হাত বাঁকিয়ে ফেলছেন নির্ধারিত সীমার চেয়ে অনেক বেশি।

সম্প্রতি ব্রিজবেনে আজমলের বোলিং অ্যাকশনের বায়ো-মেকানিকস টেস্ট করা হয়। এতেই তার বোলিংয়ের ত্রুটি ধরা পড়ে। গত কয়েক বছর ধরে বিশ্বের সেরা বোলারদের একজন হিসেবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেছিলেন আজমল। পাকিস্তানের সব ফরম্যা টের ক্রিকেটে তিনিই ছিলেন এক নম্বর স্পিনার।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর