advertisement
আপনি দেখছেন

উইন্ডোজ অপারেটিং সিস্টেমকে ভাইরাস থেকে সুরক্ষার জন্য যথেষ্ট ভূমিকা রাখতে না পারার কারণে দীর্ঘদিন বদনাম ছিলো মাইক্রোসফটের। কিন্তু গত কয়েক বছরে উইন্ডোজ ডিফেন্ডারের মাধ্যমে নিরাপত্তার ক্ষেত্রে অনেকটা পথ এগিয়ে গেছে প্রতিষ্ঠানটি। এবার তারা হাত বাড়ালো অ্যান্ড্রয়েডের দিকে।

microsoft security for android phone

এক সাম্প্রতিক প্রতিবেদনে জানা যাচ্ছে যে, কম্পিউটার বা অন্য কোনো অপারেটিং সিস্টেমের নিরাপত্তায় মাইক্রোসফটের এটিপির (অ্যাডভান্সড থ্রেট প্রোটেকশন) ব্যবস্থার উপর জোর দিচ্ছে অনেকেই। মাইক্রোসফটের এ প্রযুক্তির নামই মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার।

অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারিরা প্রায়ই অভিযোগ করেন যে, এক অ্যাপ নামাতে গিয়ে নেমে গেছে অনেক কিছু, ঘন ঘন স্ক্রিনে আসতে থাকে নানা বিজ্ঞাপন আরো অনেক রকম সমস্যা হয়। এই সমস্যাগুলোর মূল কারণ ভাইরাসযুক্ত অ্যাপ।

এই ভাইরাসগুলোর মধ্যে অন্যতম হলো ম্যালিসিয়াস সফটওয়্যার, ম্যালওয়্যার, ফিশিং স্ক্যামস, ট্রোজান হর্সেস এবং আরো অনেক। প্রতি মাসে কয়েকশ অ্যাপস ফেলে দেয় গুগল। কিন্তু তার আগেই এই অ্যাপগুলো প্রচুর ফোনে ইন্সটল করা হয়ে যায়।

microsoft edge

এই পরিস্থিতি সামাল দিতে মাইক্রোসফট ডিফেন্ডার এবং অ্যান্ড্রয়েড একটি চুক্তি স্বাক্ষর করতে যাচ্ছে। চুক্তির পর কাজ সম্পন্ন হলে উইন্ডোজ ডিফেন্ডারের মাধ্যমে ব্যবহারকারিরা ম্যালওয়্যারের জন্য ফোন স্ক্যান ও ফিশিং আক্রমণ থেকে নিজেদের রক্ষা করতে পারবেন।

ডিফেন্ডার যদি কোনো অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপে ভাইরাস খুঁজে পায়, তাহলে তা আর ফোনে ইন্সটল হবে না এবং এটি ই-মেইল, ব্যাংকিং অ্যাপগুলোকে সুরক্ষিত রাখবে। জানা গেছে, আগামী কয়েক মাসের মধ্যে অ্যাপটি অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারিদের জন্য উন্মুক্ত হবে।

sheikh mujib 2020