advertisement
আপনি দেখছেন

করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সারা বিশ্ব এখন যোগাযোগের জন্য বেছে নিয়েছে ডিজিটাল মাধ্যম। বিশ্বের বহু এলাকার মানুষ চাইলেও বাড়ি থেকে বের হতে পারছে না। তাদের মেনে চলতে হচ্ছে সামাজিক দূরত্ব। কোথাও কোথাও লকডাউনে এতো কড়াকড়ি আরোপ করা হয়েছে যে, বাড়ির বাইরে গেলে জেল-জরিমানাও গুনতে হচ্ছে। এই অবস্থায় হারানো জনপ্রিয়তা ফিরে পেয়েছে স্কাইপি। দারুণ চলছে গুগল ডুয়ো’ও।

video chatting app which can help you connected

এ ছাড়া ফেসবুক মেসেঞ্জার এবং এর সহযোগী প্রতিষ্ঠান হোয়াটসঅ্যাপ ও ইন্সটাগ্রামেও ভিড় করেছে কোটি কোটি ব্যবহারকারি। বাড়ির বাইরে যেতে না পারার এবং সরাসরি প্রিয়জনদের সাথে দেখা না করতে পারার কষ্ট অনেকটাই দূর হয়ে যাচ্ছে এ সব যোগাযোগ অ্যাপগুলোর কল্যাণে।

“প্রিয়জনদের সাথে সংযুক্ত থাকা এখন আগের যে কোনো সময়ের চেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ,” এমন মন্তব্য করেছেন মাইক্রোসফটের ভাইস প্রেসিডেন্ট ইউসুফ মেহদি।

মাইক্রোসফট জানিয়ে এখন প্রতিদিন ৪০০ মিলিয়ন মানুষ স্কাইপি ব্যবহার করছে। যা গত মাসের তুলনায় তাদের মোট ব্যবহারকারির ৭০ শতাংশ বৃদ্ধি বলে জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। তারা আরো জানিয়েছে, গত ছয় মাসে স্কাইপির মোট ব্যবহারকারি ছিলো সব মিলিয়ে ২০০ মিলিয়ন।

এ দিকে গুগল জানিয়েছে, তাদের ভিডিও কলিং অ্যাপ গুগল ডুয়ো’তেও বাড়ছে ব্যবহারকারি। ক্রমবর্ধমান চাহিদার কথা মাথায় রেখে ডুয়ো’র গ্রুপ ভিডিও কলে বাড়ানো হয়েছে অংশগ্রহণকারিদের সংখ্যা। সর্বশেষ হালানাগাদের পর ডুয়ো’তে সর্বোচ্চ ১২ জন করে গ্রুপ ভিডিও করা যাচ্ছে।

উল্লেখ্য, করোনা ভাইরাস গত ডিসেম্বর মাসে চীনের উহান শহরে প্রথম পাওয়া যায়। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত সারা পৃথিবীতে সাড়ে সাত লাখের বেশি লোক এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে মারা গেছেন ৩৬ হাজারের বেশি লোক। সুস্থ হয়েছেন দেড় লাখের বেশি এবং এখনো আক্রান্ত হয়ে আছেন সাড়ে পাঁচ লাখের বেশি মানুষ। এদের মধ্যে আবার ২৮ হাজারের বেশি আক্রান্তের অবস্থা আশঙ্কাজনক।