advertisement
আপনি দেখছেন

এবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক প্রশ্নবিদ্ধ ও বিতর্কিত সব পোস্টের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে। পাশাপাশি বিভিন্ন রাজনৈতিক পোস্টের ওপরও থাকবে তাদের কড়া নজরদারি। রাজনৈতিক ব্যক্তিদের ব্যক্তিগত অ্যাকাউন্ট ও পেজও তারা এ কার্যক্রমের আওতাভুক্ত করেছে বলে জানা গেছে।

facebook addictionপ্রতীকী ছবি

ফেসবুকের বিজ্ঞাপন ব্যবস্থাপনাকে ঘিরে অস্বস্তিকর পরিবেশ থেকে বের হয়ে আসতেই এসব ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মার্ক জাকারবার্গ।

কিছুদিন আগে কোকাকোলাসহ বেশ কয়েকটি কোম্পানি ফেসবুকে বিজ্ঞাপন দেয়া থেকে নিজেদের সরিয়ে নেয়। তাদের অভিযোগ, এই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিজ্ঞাপন ব্যবস্থাকে কাজে লাগিয়ে কিছু সম্প্রদায় বিদ্বেষ ছড়াচ্ছে। পাশাপাশি অনেকে মিথ্যা তথ্য প্রচার করে মানুষ ঠকানো হচ্ছে, কোম্পানির ক্ষতি করছে।

facebook must stand up for free speechফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মার্ক জাকারবার্গ

নতুন এই সংশোধন প্রসঙ্গে জাকারবার্গ বলেন, বিদ্বেষমূলক বক্তব্যের বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে যাচ্ছে ফেসবুক। শুধু ইংরেজিতেই নয়, অন্যান্য ভাষাতেও একই ব্যবস্থা নেয়া হবে। আমাদের কন্টেন্ট মেনেজমেন্ট এবার সহিংসতা ছড়ায় এমন পোস্টগুলোকে বিভিন্ন ফিল্টারের মাধ্যমে প্রকাশ করা হবে। সন্দেহপ্রবণ কোনো পোস্ট পেলে আমরা সঙ্গে সঙ্গে তা সরিয়ে দিবো।

তিনি আরো বলেন, এখন থেকে ফেসবুকের যেকোনো রাজনৈতিক পোস্ট যাচাই করা হবে। রাজনৈতিক ব্যক্তিদের কোনো বক্তব্যে অসাঞ্জস্যতা পাওয়া গেলে তাতে ওয়ার্নিং দেয়া হবে এবং সাথে একটি লেবেল যুক্ত করে দেয়া হবে। ধীরে ধীরে আমরা এই সেবা বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে শুরু করছি। এতে পাঠকরা গুরুত্বপূর্ণ রাজনৈতিক ব্যক্ততিবর্গের বক্তব্য সম্পর্কে সঠিক ধারণা পাবে বলে আশা করেন তিনি।

sheikh mujib 2020