advertisement
আপনি পড়ছেন

কদিন আগেই তাদের সম্পর্কটা ছিলো সংজ্ঞার বাইরে। আমির দলে থাকছেন বলে দল ছেড়ে দিয়েছিলেন হাফিজ। কারণ ছিলো আমিরের অন্ধকার অতীত। শাস্তি কাটিয়ে ফিরলেও তার উপর ভরসা করতে পারছিলেন না হাফিজ। কিন্তু এবার আমিরের বিপদে এগিয়ে এলেন তিনিই!

mohammad amir returns to odi cricket taking 3 wicket haul

পাঁচ বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরেছেন আমির। প্রথমে খেলেছেন টি-টোয়েন্টি। তারপর গতকাল তার ফেরা হলো ওয়ানডেতেও।

এদিনই বড় এক অপমানের শিকার হতে হয় তাকে। খেলার এক পর্যায়ে আমির যখন সীমানার কাছে ফিল্ডিং করছিলেন, তখন তার দিকে এক ডলারের নোট উঁচু করে তাকে অপমান করা হয়। অর্থাৎ আমির যে ডলারের লোভে পড়ে ফিক্সিংয়ের অন্ধকার জগতে ডুব দিয়েছিলেন সেটাই সামনে নিয়ে আসা হয় আবার।

আমির লজ্জায় যখন নির্বাক হয়ে গেছেন প্রায়, তখনই এগিয়ে আসেন হাফিজ। সীমানার বাইরে দাঁড়ানো নিরাপত্তারক্ষীদের ডেকে আমিরকে অপমান করার বিষয়টি দর্শকদের বিষয়ে অভিযোগ করেন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা কর্মকর্তারা দর্শকদের চিহ্নিত করে তাদেরকে সতর্ক করে দেন।

এ দিকে এ ঘটনাকে হাফিজ অভিহিত করেছেন পাকিস্তানের অপমান হিসেবে। তিনি বলেন, ‘আমির এখন জাতীয় দলে খেলছে। সে তার অপরাধের শাস্তি ভোগ করে এসেছে। এখন তাকে অপমান করা মানে পুরো পাকিস্তানকে অপমান করা।’

এর আগে আমির দেশের সম্মান নষ্ট করেছেন অভিযোগ করে তার সঙ্গে খেলতে অস্বীকৃতি জানিয়েছিলেন হাফিজ। এবারও দেশের কথা সামনে এনেই আমিরের সম্মান বাঁচাতে এগিয়ে এলেন তিনি। পাকিস্তানিদের কাছে এই মুহূর্তে হাফিজ সত্যি সত্যিই একজন নায়কের নাম।

 

আপনি আরো পড়তে পারেন

বিপদ সংকেত পাঠালো বাংলাদেশের যুবরা

আনন্দ বেদনায় মিলেমিশে একাকার আমির

নতুন জার্সিতে বিশ্বকাপ খেলবে যুব ক্রিকেট দল