advertisement
আপনি দেখছেন

বঙ্গবন্ধু বিপিএলের মাঠের লড়াই শুরু হওয়ার আগেই বিতর্ক শুরু হয়ে গিয়েছিল। মাঠের লড়াইয়ের দিন সেটা যেনো আরও বেড়ে গেল। উদ্বোধনী ম্যাচের টস নির্ধারিত সময়ে হয়নি। সিলেট থান্ডার্সের অধিনায়ক মোসাদ্দেক হোসেনের জার্সির নামে ছিল হাস্যকর ভুল। জায়ান্ট স্ক্রিনেও বারবার ভুল বার্তা দেখা গেছে। তবে এসবকে ছাড়িয়ে গেছে ক্রিসমার স্যান্টোকির দুটি ডেলিভারি।

bpl no ball 2019

টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে আজ চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মুখোমুখি হয় সিলেট থান্ডার্স। ম্যাচে চট্টগ্রাম ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে ক্রিসমার স্যান্টোকির দুটি ডেলিভারি অবাক করে দিয়েছে সবাইকে।

ওই সময় ব্যাটিংয়ে ছিলেন চট্টগ্রামের ওপেনার অভিস্কা ফেরনান্দো। ক্রিসমার স্যান্টোকি ওভারের তৃতীয় ডেলিভারিটা এতোটাই ওয়াইড করলেন যে ফেরনান্দোও ভ্যাবাচ্যাকা খেয়েছেন। পপিং ক্রিজেরও অনেকটা বাইরে পিচ করে স্যান্টোকির ডেলিভারিটি।

ওই ওভারেরই পঞ্চম ডেভিভারিটি আরও বেশি অবাক করেছে। বল ছোড়ার সময় দাগ থেকে প্রায় এক হাত বাইরে ছিল স্যান্টোকির ডান পা। প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে এতো বড় নো বল একেবারেই বিরল। লর্ডসে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে মোহাম্মদ আমিরের সেই ‘কুখ্যাত’ নো বলটিও চেয়েও বড় ছিল স্যান্টোকির নো বল।

একই ওভারে এমন দুটি ডেলিভারি নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন অনেকে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিভিন্নজন বিভিন্ন কথা বলছেন স্যান্টোকির ওই দুই ডেলিভারি নিয়ে।