advertisement
আপনি দেখছেন

রানখরা এবং ব্যাটিংয়ের ধরন নিয়ে অনেক দিন ধরেই চাপের মধ্যে ছিলেন তামিম ইকবাল। অবশেষে খোলস ছেড়ে বেরিয়ে এসেছেন দেশসেরা ওপেনার। মঙ্গলবার জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে তুলে নেন ক্যারিয়ারের দ্বাদশ সেঞ্চুরি। দ্বিশতকের সম্ভাবনা জাগিয়ে এদিন তামিম আউট হন ১৫৮ রানে। ইনিংসে কুড়ি চার ও তিনটি ছক্কা হাঁকিয়েছেন বাঁ-হাতি ওপেনার।

tamim mashrafe 2020

বিস্ফোরক এই ইনিংস খেলে তামিম কাটিয়ে উঠেছেন চাপ; জবাব দিয়েছেন দুঃসময়কে। তার কাছ থেকে এমন একটা বড় ইনিংসের অপেক্ষায় ছিল বাংলাদেশ দল ও তার ভক্ত-সমর্থকরা। তাদেরই একজন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ম্যাচ শেষে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে অধিনায়ক বলেছেন, ‘আমরা জানতাম, এরকম ইনিংস সে (তামিম) যে কোনো সময় খেলতে পারে।’

ম্যাচ শেষে মাশরাফি জানান তামিমের ওপর আস্থা হারাননি তিনি। বলেছেন, ‘আমি মনে করি, তামিম আমাদের স্পেশাল (ক্রিকেটার)। ও রান করে খুশি, এটাই ভালো দিক। ওর আশেপাশের সবাই ভালো ব্যাটিং করেছে এবং এটা দেখতে ভালো লেগেছে। একটা ব্যাপার ভালো হয়েছে যে বড় রান করেছে। শুধু রান নয়, বড় রান করেছে। ওর জন্য ভালো হয়েছে, দলের জন্যও ইতিবাচক। ওর প্রতি আমাদের আস্থা ছিল।’

তামিমের ওপর বিশ্বাস ছিল বাংলাদেশ দলের ব্যাটিং কোচ নিলে ম্যাকেঞ্জিরও। ম্যাচের আগের দিন অনুশীলনে দক্ষিণ আফ্রিকান কোচ জানান, তামিমের বড় ইনিংস পাওয়া শুধুই সময়ের অপেক্ষা। মঙ্গলবার সিলেট আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে সেই অপেক্ষাটা ঘুচিয়ে আস্থার প্রতিদান দিয়েছেন তামিম। রানে ফিরতে এভাবে তাকে সুযোগ করে দেওয়ার জন্য টিম ম্যানেজমেন্ট এবং কোচের কাছেও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন তিনি।