advertisement
আপনি দেখছেন

হ্যাটট্রিক করাটা সব সময়ই কৃতিত্বের। যা একজন বোলারের জন্য স্মরণীয় ব্যাপার। তবে এই হ্যাটট্রিক হয়তো মনে রাখতে চাইবেন না হারিস রউফ। কারণ বল হাতে নয়, টানা তিনবার করোনা পজেটিভ এসেছে এই পাক পেসারের।

harish rauf pakistanহারিস রউফ

ইংল্যান্ড সফরের আগে করোনা টেস্টের উদ্যোগ নেয় পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। ঝামেলার শুরু এর পরই। কারণ দুই দফা টেস্টে পজেটিভ আসে ১০ ক্রিকেটারের। আর রউফের আসে তিন তিনবার পজেটিভ। তাই ২০ সদস্যের দল নিয়েই ২৮ জুন দেশ ছাড়ে আজহার আলির দল। 

রউফের পজেটিভ আসার দিনে রিপোর্ট নেগেটিভ আসে আরেক পেসার ইমরান খান এবং ব্যাটসম্যান হায়দার আলির। তবে এখনো পরীক্ষার ফল হাতে পাননি কাশিফ ভাট্টি। এর আগে একবার নেগেটিভ আসে এই তিন ক্রিকেটারের। তাই আজকের পরীক্ষায় একই ফল পেলে ইংল্যান্ড যেতে আর কোন বাধাই থাকবে না তাদের।

pak cricket dalপাক ক্রিকেট দল

করোনা বিতর্কে সব থেকে এগিয়ে ছিল মোহাম্মদ হাফিজ। পিসিবির অধীনে টেস্ট করিয়ে প্রথমবার পজেটিভ আসে তার। কিন্তু তা মেনে নিতে কষ্ট হয় এই অলরাউন্ডারের। সন্তুষ্টির জন্য নিজ উদ্যোগে ফের পরীক্ষায় অংশ নেন। যেখানে ফল আসে নেগেটিভ। এরপর সংবাদমাধ্যমে তা চাউর হলে হাফিজের ওপর চটে যায় পিসিবি। শাস্তির ঘোষণাও দেয় বোর্ডটি। কিন্তু পর পর দুইবার নিজেকে নেগেটিভ প্রমাণ করে বেঁচে যান সাবেক অধিনায়ক। 

পাকিস্তান দল বর্তমানে উস্টারশায়ারে কোয়ারেন্টাইন পালন করছে। কয়দিন পর সেখানেও তাদের করোনা টেস্ট করানো হবে। এরপর নেগেটিভ এলে তবেই অনুমতি মিলবে সিরিজ খেলার। পাঁচটি টেস্ট ও সমান সংখ্যক টোয়েন্টি খেলবে দল দুটি। এই সিরিজটির জন্য অনেক বেশিই সতর্ক ছিল ইসিবি। কারণ তা ভেস্তে গেলে বড় ধরনের ক্ষতি গুনতে হতো ইংল্যান্ড এন্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডকে। উপায়ান্তর না দেখে চার্টার্ড ফ্লাইট ভাড়া করে সফরকারীদের নিয়ে গেছে স্বাগতিকরা।

sheikh mujib 2020