advertisement
আপনি পড়ছেন

শেষ টেস্টেও ভাগ্যের পরিবর্তন করতে পারছে না নিউজিল্যান্ড, এমন আভাস চতুর্থ দিনের খেলা শেষেই পাওয়া গেছে। শেষ দিনের শুরুতে বৃষ্টি নামায় অন্তত ধবল ধোলাইয়ের লজ্জা থেকে রক্ষা পাওয়ার একটা সুযোগ তৈরি হয়েছিল ব্ল্যাক ক্যাপসদের জন্য। কিন্তু দ্বিতীয় সেশনে বল মাঠে গড়ানোয় সফরকারীদের সে আশাটুকুও শেষ হয়ে যায়।

eng vs nz 3শেষ টেস্টেও জিতেছে ইংল্যান্ড

তিন ম্যাচ সিরিজের তৃতীয় এবং শেষ টেস্টে নিউজিল্যান্ডকে ৭ উইকেটে হারিয়েছে ইংল্যান্ড। এর আগে প্রথম দুই ম্যাচেও জয় পেয়েছিল ব্রেন্ডন ম্যাককালামের শিষ্যরা। শেষ টেস্টে বেন স্টোকসদের সামনে লক্ষ্য ছিল ২৯৬ রানের। সাদা পোশাকের প্রথম দুই ম্যাচে স্বাগতিকরা জিতেছে যথাক্রমে ২৭৬ এবং ২৯৮ রান তাড়া করে। তাতেই এক সিরিজে তিনবার আড়াইশর বেশি রান তাড়া করে জয়ের কীর্তি গড়েছে ইংলিশরা।

জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে চতুর্থ দিন শেষে ২ উইকেটে হারিয়ে ১৮৩ রান করেছিল ইংল্যান্ড। শেষ দিনের শুরুতেই ব্যক্তিগত ৮২ রানে বিদায় নেন ওলি পোপ। শুরুর ধাক্কা সামলে আধিপত্য দেখিয়েই ম্যাচের ইতি টেনেছে স্বাগতিকরা। নেতৃত্বে ছিলেন জনি বেয়ারস্টো। আরো একদফা চার-ছক্কার ঝড় তোলেন এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান।

eng vs nz 4বেন স্টোকসদের মুখে হাসি

চতুর্থ উইকেটে রুটকে নিয়ে ১১১ রানের নিরবচ্ছিন্ন জুটি গড়ে দলকে জয় এনে দেন বেয়ারস্টো। ৪৪ বলে ৮ চার এবং ৩ ছয়ের মারে ৭১ রানে অপরাজিত থাকেন এই তারকা ক্রিকেটার। তার সঙ্গী রুট অপরাজিত ছিলেন ৮৬ রানে।

লিডসের ইয়র্কশায়ার ক্রিকেট গ্রাউন্ডে প্রথম ইনিংসে ৩২৯ রানে অলআউট হয় নিউজিল্যান্ড। জবাব দিতে নেমে ৩৬০ রানে করে ইংল্যান্ড। ৩১ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ৩২৬ রান করে সফরকারীরা দল।