advertisement
আপনি পড়ছেন

পাক্কা চার বছর পর স্প্যানিশ লা লিগা শিরোপা জয়, আনন্দে রীতিমতো গদগদ রিয়াল মাদ্রিদ। তবে একজন ভেতরে ভেতরে হয়তো পুড়ছেন! ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর কথা বলা হচ্ছে। লিগ শিরোপা জিতলেও সর্বোচ্চ গোলদাতার পিচিচি ট্রফি হারাতে হয়েছে লিওনেল মেসির কাছে। এবার ইউরোপ সেরা একাদশেও জায়গা পেলেন না রোনালদো। অথচ লিগ না জিতেও জায়গা পেয়ে গেছেন মেসি!

ronaldo messi el clasico

ইউরোপের শীর্ষ পাঁচটি লিগের খেলা শেষ হয়েছে ইতোমধ্যে। স্প্যানিশ লা লিগা, ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ, ইতালিয়ান সিরি-আ, ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ান ও জার্মান বুন্দেসলিগা। এই পাঁচ লিগের সেরাদের নিয়ে একটা ইউরোপ সেরা একাদশ বানিয়েছে ফুটবলের জনপ্রিয় ওয়েব সাইট গোল ডট কম। এই তালিকায় নাম নেই রোনালদোর। কিন্তু আছেন লিওনেল মেসি। বিষয়টি রোনালদোকে পোড়াবে না তা কি হয়!

৪-৩-৩ ফরমেশনে সাজানো একাদশে গোলরক্ষক হিসেবে রাখা হয়েছে জুভেন্টাসের ইতালিয়ান মহাতারকা বুফনকে। এরপর ডিফেন্সে রাখা হয়েছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের দিয়েগো গডিন, চেলসির অ্যাজপিকিুয়েতা, আটলান্টার আন্দ্রে কন্তে ও রিয়াল মাদ্রিদের মার্সেলোকে।

মিডফিল্ডে জায়গা পেয়েছেন বায়ার্ন মিউনিখের থিয়েগো আলকান্তারা, চেলসির এলগোলো কান্তে ও মোনাকোর বেরনানদো সিলভা। আর আক্রমণ ভাগে রাখা হয়েছে লিওনেল মেসি, মোনাকোর এমবাপে ও আর্সেনালের অ্যালেক্সিস সানচেজকে। লিওনেল মেসি ও এমাবাপেকে রাখা হয়েছে দুই প্রান্তে। আর অ্যালেক্সিস সানচেজকে রাখা হয়েছে মাঝখানে। খাঁটি স্ট্রাইকার হিসেবে।

একমাত্র চেলসি ও মোনাকোরই দুইজন করে ফুটবলার জায়গা পেয়েছেন গোল ডট কমের ইউরোপ সেরা একাদশে। অন্য কোন দল থেকে একজনের বেশি জায়গা পায়নি।