advertisement
আপনি পড়ছেন

একচ্ছত্র আধিপত্যে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে ছুটে চলছে ম্যানচেস্টার সিটি। এ যাত্রায় বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিল ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন চেলসি। রোববার সেই দলটাকেও পরাজয়ের তিক্ত স্বাদ দিল সিটিজেনরা। তবে এদিন আবার হেরেছে আর্সেনাল। ব্রাইটনের মাঠ থেকে ২-১ গোলের হার নিয়ে ফিরেছে আর্সেন ওয়েঙ্গারের দল।

manchester city dreaming of trophy

মহারণ জয়ের জন্য সিটি কোচ পেপ গার্দিওলা ধন্যবাদ দিতে পারেন দুই সিলভাকে- বার্নাডো ও ডেভিডকে, কারণ ম্যাচের একমাত্র ও জয়সূচক গোলটা এসেছে তাদের সৌজন্যেই। ৪৬ মিনিটে করা মোনাকোর সাবেক তারকার বার্নাডোর গোলটা ফিরিয়ে দিতে পারেনি সফরকারী চেলসি।

ঘরের মাঠ ইতিহাদ স্টেডিয়ামে এ জয়ের ফলে শিরোপার আরো কাছে চলে এসেছে ম্যানচেস্টার সিটি। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ টেবিলে নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী লিভারপুলের চেয়ে ১৮ পয়েন্ট এগিয়ে গেছে ইতিহাদের দলটি। সিটির ঘরে আছে ৭৮ পয়েন্ট। শিরোপা জিততে আর ১২ পয়েন্ট দরকার তাদের।

তবে শীর্ষ দুই দলের চেয়ে এক ম্যাচ কম খেলেছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। ২৮ ম্যাচে তাদের পয়েন্ট ৫৯। তবে হারলেও ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের পাঁচে থাকল চেলসি। কিন্তু এটা খুব একটা স্বস্তির কথা নয় অ্যান্তনিও কন্তের দলের জন্য। কারণ তাদের চেয়ে পাঁচ পয়েন্ট দূরত্বে আছে চারে থাকা টটেনহাম।

লিগে এখনো ২৭ পয়েন্টের খেলা বাকি আছে ম্যানচেস্টার সিটির। এর মধ্যে ১৮ পয়েন্ট পেলেই রেকর্ড চ্যাম্পিয়ন হবে তারা। ২০০৪-০৫ মৌসুমে সর্বোচ্চ ৯৫ পয়েন্ট নিয়ে শিরোপা জিতেছিল চেলসি। এবার তাদের ছাড়িয়ে যাওয়ার সুযোগ সিটির সামনে।

কিন্তু রেকর্ডের জন্য খেলে না দল। ইতিহাদের মহারণ জয়ের পর সিটি কোচ গার্দিওলা এমনটাই বলেছেন, ‘আমরা রেকর্ডের জন্য খেলছি না। আমরা চ্যাম্পিয়ন হতে পারলাম কিনা সেটাই বড় কথা। আমি কখনোই ছেলেদের রেকর্ডের কথা বলি না।’