advertisement
আপনি পড়ছেন

বয়স ৩০ পেরিয়ে গেছে। আগামী বিশ্বকাপে  লিওনেল মেসির বয়স হবে ৩৪ বছর। সেই বয়সে বিশ্বকাপ খেলা হবে কি হবে না, তা নিয়ে আছে জোর সংশয়। ফলে এবারের রাশিয়া বিশ্বকাপটাকেই আর্জেন্টিনার হয়ে মেসির বড় কোনো শিরোপা জেতার শেষ সুযোগ বলে মনে করছেন সবাই।

lionel messi argentina wrold cup

বাছাই পর্বে ধুঁকলেও আর্জেন্টিনাকে এবারের বিশ্বকাপের অন্যতম ফেভারিট বলছেন অনেকে। তবে যাকে ঘিরে ফেভারিট ভাবা হচ্ছে, সেই লিওনেল মেসিই অতো বড় স্বপ্ন দেখছেন না! বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে উঠতে পারাটাকেই ‘ভালো’ বলেছেন আর্জেন্টিনা অধিনায়ক।

রাশিয়া বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাকে কোথায় দেখলে খুশি হবেন? এমন প্রশ্নে আর্জেন্টিনার টিভি চ্যানেল টিওয়াইসি স্পোর্টসকে মেসি বলেছেন, ‘বিশ্বকাপ ভালোভাবে শেষ করতে হলে শেষ চারে থাকতে হবে। আর আর্জেন্টিনার এবার শেষ চারে যাওয়ার যোগ্য। আমাদের ইতিহাস তা-ই বলে। তবে সেমিতে উঠতে হলে আমাদের কঠিন পরিশ্রম করতে হবে। অমাার মতে, আবারও এই পর্যায়ে উঠতে হবে আমাদের।’

টিওয়াইটি স্পোর্টসের সঙ্গে অনেক বিষয় নিয়েই খোলামেলা আলোচনা করেছেন মেসি। ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বড় প্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর প্রসঙ্গও চলে এসেছিল আলোচনায়।

মেসি বলেছেন রোনালদোর সঙ্গে কোনো প্রতিদ্বন্দ্বিতাই নেই তার, ‘আমি ক্রিশ্চিয়ানোর সঙ্গে প্রতিযোগিতা করি না। তাদের (রিয়াল মাদ্রিদ) লিগ জয় বা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ফাইনালে পৌঁছানো আমাকে উদ্দীপ্ত করে। আমি প্রতি বছরই লা লিগা জিততে চাই, চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিততে চাই। আসলে সবাই এটা চায়।’

মেসি বলেন, ‘ইতিহাসের সেরা হওয়াটা কোনো লক্ষ্য না। আমি আসলে কখনোই সেরা, দ্বিতীয় সেরা, তৃতীয় বা চতুর্থ সেরা হওয়ার লক্ষ্য নিয়ে খেলি না। বছরের পর বছর আমি নিজের উন্নতির জন্য প্রতিযোগিতা করি।’