advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 32 মিনিট আগে

বেশ কয়েকবছর ধরেই ব্যালন ডি'অরের প্রাথমিক তালিকায় ছিলেন হ্যাজার্ড। এবার অন্তত সেরা তিনে থাকবেন হ্যাজার্ড এমনটা ভাবা হচ্ছিল। যদিও বেলজিয়ান প্লে-মেকারের ঠাঁই হলো সেরা পাঁচে। কিন্তু একদিন ঠিকই বিশ্বসেরা ফুটবলার হবেন হ্যাজার্ড।

eden hazard chelsea star

সেই দিনটা খুব বেশি দূরে নয়। চেলসির আফ্রিকান তারকা বাবা রহমানের ভাবনটা এমনই। অদূর ভবিষ্যতে সতীর্থ হ্যাজার্ডের হাতে ব্যালন ডি'অরের ট্রফি দেখছেন তিনি। রহমানের মতে বিশ্বসেরা ফুটবলার হওয়ার প্রায়সব গুণই আছে হ্যাজার্ডের।

২০১৫ সালে জার্মান ক্লাব অগসবুর্গ থেকে চেলসিতে নাম লেখান রহমান। পশ্চিম লন্ডনের ক্লাবটিতে আসার পর একাদশে কখনোই নিয়মিত হতে পারেননি তিনি। তবে অনুশীলনে বা ডাগ আউটে বসে হ্যাজার্ডকে যতটুকু দেখেছেন সেই পর্যবেক্ষণ থেকেই শুক্রবার মত প্রকাশ করেছেন তিনি।

শুক্রবার গোলডটকমকে রহমান বলেছেন, 'আমাদের (হ্যাজার্ডের সঙ্গে) অনেক মধুর স্মৃতি আছে। সাধারণত আমরা জীবনযাপন, খেলাধুলা নিয়ে অনেক কথাই বলে থাকি। ও দুর্দান্ত, দক্ষ এবং বিপজ্জনক খেলোয়াড়। আমার মনে ও এখন বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড়। অন্যরাও হয়তো আমার সঙ্গে একমত হবেন।'

২৪ বছর বয়সী ঘানাইয়ান ডিফেন্ডার আরো বলেছেন, 'ও ব্যালন ডি'অর জেতার সামর্থ্য রাখে কি? আমি বলব এটা জয়ের জন্য ইডেনের (হ্যাজার্ড) সম্ভাব্য সবকিছুই আছে। আমার মনে হয় ব্যালন ডি'অর জেতাটা ওর জন্য এখন শুধুই সময়ের অপেক্ষা।'

গত মৌসুমটা দুর্দান্ত কেটেছে হ্যাজার্ডের। তার নেতৃত্ব ও পারফরম্যান্সের গুণে প্রথমবারের মতো বিশ্বকাপের সেরা তৃতীয় দল হয়েছে বেলজিয়াম। আগুনে ফর্মটা এই মৌসুমেও বয়ে এনেছেন হ্যাজার্ড। চেলসিতে সতীর্থদের দিয়ে গোল করানোর পাশাপাশি তিনি নিজেও ১৯টি গোল করেছেন। যেভাবে ছুটছেন বেলজিয়ান সেনসেশন তাতে করে ব্যালন ডি'অরের দাবিদার হয়ে উঠছেন তিনি।

sheikh mujib 2020