advertisement
আপনি দেখছেন

চেলসির নাম্বার টেন হয়ে উঠেছিলেন উইলিয়ান। ইডেন হ্যাজার্ড চলে যাওয়ার পর বলতে গেলে একাই মধ্যমাঠের ঘানি টেনেছেন ব্রাজিলিয়ান তারকা। শেষ পর্যন্ত তিনিও স্ট্যামফোর্ড ব্রিজ ছাড়ছেন। পশ্চিম লন্ডনের ক্লাব চেলসি ছেড়ে উত্তর লন্ডনের ক্লাব আর্সেনালে যোগ দিচ্ছেন উইলিয়ান। বিদায়ের আগ মুহূর্তে চেলসি সমর্থকদের প্রতি আবেগী এক বার্তা দিয়েছেন তিনি।

willian chelsea midfielder

উইলিয়ানের সঙ্গে এই মৌসুম পর্যন্ত চুক্তি ছিল চেলসির। তাকে আরো এক বছরের জন্য চেয়েছিল চেলসি। কিন্তু ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডারের চাওয়া ছিল তিন বছরের চুক্তি। এনিয়ে সমঝোতা হয়নি। সুযোগটা কাজে লাগিয়েছে চেলসির প্রতিবেশী ক্লাব আর্সেনাল। উইলিয়ানের সঙ্গে ২০২৩ সাল পর্যন্ত চুক্তির প্রস্তাব দিয়েছে গানাররা। তাতে রাজি হয়ে গেছেন এই মিডফিল্ডার।

চেলসির হয়ে দুটি ইংলিশ লিগ জিতেছেন ব্রাজিলিয়ান তারকা। সাত বছরের অধ্যায়ে এফএ কাপ, ইংলিশ লিগ কাপ এবং ইউরোপা লিগ ট্রফি জয়ের স্বাদ পেয়েছেন তিনি। এসবকিছু অতীত হয়ে যাচ্ছে। শনিবার বায়ার্ন মিউনিখের বিরুদ্ধে চেলসির হয়ে শেষ ম্যাচটি খেলে ফেলেছেন উইলিয়ান। অর্ধ যুগের বেশি সময়ের মধুচন্দ্রিমা শেষে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ক্লাব সংশ্লিষ্টদের উদ্দেশ্যে আবেগছোঁয়া বার্তা দিয়েছেন উইলিয়াম। রোববার ইন্সটাগ্রামে তিনি যা লিখেছেন তা পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো:

willian celebrates a goal

‘এখানে চমৎকার সাতটি বছর কেটেছে। ২০১৩ সালের আগস্টে যখন আমি চেলসির প্রস্তাব পাই, রাজি হয়ে যাই। কিন্তু আজ আমি যে সিদ্ধান্ত নিয়েছি সেটাই সঠিক। এখানে আমার অনেক ভালো সময় কেটেছে, কিছুটা খারাপও। চেলসির হয়ে ট্রফি জয়ের স্বাদ ছিল অন্যরকম। এখানে থেকে আমি অনেককিছুই শিখেছি। নিজের সম্পর্কে জেনেছি; উন্নতি করেছি। এখানে থেকেই ভালো একজন খেলোয়াড় এবং ভালো একজন মানুষ হয়ে উঠেছি।’

‘আমি চেলসি সমর্থকদের কাছে কৃতজ্ঞ। তারা আমাকে স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে স্বাগত জানিয়েছেন এবং ক্লাবে থাকাকালীন সমর্থন দিয়ে গেছেন। এখন চলে যাওয়ার সময় হয়েছে। নিশ্চিতভাবেই আমি আমার সতীর্থদের মিস করব। সমর্থকদের মিস করব। মিস করব কোচিং স্টাফদের। যারা সবসময় আমাকে নিজের ছেলের মতো দেখতেন। আমি মাথা উঁচু করেই যাচ্ছি। চেলসির জার্সিতে সবসময় সেরাটা দিয়েছি। সবাইকে ধন্যবাদ এবং ঈশ্বর আপনাদের মঙ্গল করুক।’

sheikh mujib 2020