advertisement
আপনি দেখছেন

আগামী ২৪ জুলাই থেকে জাপানের রাজধানী টোকিওতে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ক্রিয়াযজ্ঞ অলিম্পিক শুরু হওয়ার কথা রয়েছে। কিন্তু করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে এবারের আসরটি বাতিল হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছে। তবে এখনই আশা ছাড়তে রাজি নয় আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি)।

tokeyo olympic

এ বিষয়ে আইওসির সিনিয়র কর্মকর্তা ডিক পাউন্ড বলেন, ভাইরাসটি যদি এতটাই বিপজ্জনক হয়ে থাকে তাহলে অলিম্পিকের এবারের আসর সরাসরি বাতিল করতে হবে। এক্ষেত্রে পিছিয়ে দেয়া কিংবা অন্য কোথাও স্থানান্তরের সুযোগ নেই।

‘কারণ এ আয়োজনের জন্য আমাদের অনেক কিছু করতে হয়। অ্যাথলেটদের নিরাপত্তা, স্পোর্টস ভিলেজ, খাবার-দাবার, হোটেল, সাংবাদিকদের নিরাপত্তাসহ বিভিন্ন দিক দেখতে হয়। তাছাড়া লাখ লাখ মানুষের এ আয়োজন চাইলেই সরিয়ে নেয়া কিংবা স্থগিত করা যায় না’, যোগ করেন এই কর্মকর্তা।

তবে এখনই সব আশা ছেড়ে দেয়া যাবে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, আরো কিছুদিন পর্যবেক্ষণ করে তারপর সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এদিকে অ্যাথলেটদের আশাহত না হয়ে অনুশীলন চালিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন সাবেক কানাডিয়ান সাতারু পাউন্ড। তিনি বলেন, অলিম্পিক হবে নাকি বাতিল করা হবে, এ বিষয়ে আগামী মে মাসের শেষ দিকে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হতে পারে।

উল্লেখ্য, এবারের টোকিও অলিম্পিকে ২০০ দেশের প্রায় ১১ হাজার অ্যাথলেটের অংশগ্রহণ করার কথা রয়েছে। এছাড়া ইভেন্ট উপলক্ষে সারা বিশ্ব থেকে লাখ লাখ দর্শকের সমাগম হবে।

প্রসঙ্গত, চীনসহ পুরো বিশ্বে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ৭৬০ জনে। আক্রান্ত হয়েছেন ৮০ হাজারেরও বেশি মানুষ। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২৭ হাজার ৪৭৬ জন। অলিম্পিকের আয়োজক জাপানে ভাইরাসটিতে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন অন্তত ৬ জন। এছাড়া আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৮৫০ জন।