advertisement
আপনি দেখছেন

জম্মু-কাশ্মীরের নির্দলীয় বিধায়ক ইঞ্জিনিয়ার রশিদের মুখে কালি ছুঁড়েছে ‘হিন্দু সেনা’র কর্মীরা। এই ঘটনায় দীপক শর্মা (৩০) এবং দেবেন্দ্র উপাধ্যায় (৩৩) নামে ‘হিন্দু সেনা’র দুই কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

kashmir rashid

গরু হত্যা গুজবের জের ধরে পেট্রোল বোমা হামলায় নিহত ট্রাক চালক জাহিদের হত্যা প্রসঙ্গে এক সংবাদ সম্মেলন ডেকেছিলেন বিধায়ক ইঞ্জিনিয়ার রশিদ। সাংবাদিক সম্মেলন শেষ হওয়ার পর বের হয়ে আসার সময় তার মুখে কালি মাখিয়ে দেয় ‘হিন্দুসেনা’র ওই কর্মীরা।

ঘটনার পর বিধায়ক রশিদ বলেন, মানুষ অভিযোগ করে যে, পাকিস্তানে তালেবানিকরণ করা হচ্ছে। কিন্তু দেখুন ভারতে এসব কি হচ্ছে। যারা এসব করছে তারা মানসিকভাবে অসুস্থ।

তিনি বলেন, আমি চাই সারা দুনিয়া দেখুক এসব লোক কিভাবে কাশ্মিরিদের কণ্ঠস্বর বন্ধ করে দিতে চাচ্ছে। আমি বলতে চাই, এক ইঞ্জিনিয়ার রশিদের মুখে কালি মাখিয়ে দিয়ে কোনো কিছু পরিবর্তন করা যাবে না।

ইঞ্জিনিয়ার রশিদের মুখে কালি মাখানোর সময় ‘হিন্দু সেনা’র কর্মীরা ‘গো-মাতা কা অপমান, নেহি সহেগা হিন্দুস্তান’ স্লোগান দিচ্ছিলো। তাঁরা এ সময় কালি ছুঁড়ে মারার পাশাপাশি পোড়া মোবিলের কালো তেলও ছুঁড়ে দেয়।

উল্লেখ্য, গত ৯ই অক্টোবর কাশ্মীরের উধমপুরের চেনানি গ্রামে গরু হত্যার গুজবে উত্তেজিত হয়ে হিন্দু জঙ্গীরা রাস্তার পাশে দাঁড়ানো একটি ট্রাকে পেট্রোল বোমা ছুঁড়ে মারলে ট্রাকচালক জাহিদ রাসুল বাট (৩৫) ও তার হেলপার শওকত আহমেদ দার গুরুতর আহত হন। শরীরের ৭০ শতাংশ পুড়ে যাওয়া ট্রাকচালক জাহিদ রাসুল পরবর্তীতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান।

 

আপনি আরও পড়তে পারেন

‘ভারত-পাকিস্তান-বাংলাদেশের এক হওয়া উচিত’

গরু হত্যার গুজবে ভারতে আরও ১ জনের মৃত্যু

শখের শিকারের বলি আফ্রিকার সবচেয়ে বড় হাতি