advertisement
আপনি দেখছেন

চিনের সিচুয়ান প্রদেশের একটি বয়ামে ৫০০ বছরেরও বেশি পুরনো চাল এবং অক্ষত ডিম পেয়েছেন বলে দাবি করেছে অঞ্চলটির প্রত্নতাত্ত্বিকেরা। সোমবার গুয়ানগান শহরের একটি পার্কের মিং রাজবংশের (১৩৬৮-১৬৪৪) সমাধি থেকে বয়ামটি পাওয়া গিয়েছে।

500years old egg৫০০ বছরের পুরনো ডিম

গুয়ানগান শহর জাদুঘরের কিউরেটর তাং ইউনমেই বলেছেন, এর এপিটাফ নির্দেশ করে যে, সমাধিটি ইয়াং মিং এবং তার দুই স্ত্রীর। যারা ১৫০১ সালে মারা গিয়েছিলেন।

অক্ষত শাঁসযুক্ত ডিমগুলো বয়ামের ভেতর চালের মধ্যেই রাখা হয়। গবেষকরা জানিয়েছেন, কতগুলো ডিম এবং কী পরিমাণ চাল ছিল তা এখনো যাচাই করা হয়নি।

তাং বলেন, পাথরের সমাধিটি ভালোভাবে সংরক্ষণ করা হয়েছিল এবং তার কাঠের কফিনের ভেতরে ২-৫ সেন্টিমিটার চুনের স্তরসহ ভালো আর্দ্রতারোধক এবং ক্ষয় প্রতিরোধক নকশা রয়েছে। চাল এবং ডিমের বয়ামও একটি ঢাকনা দ্বারা সুরক্ষিত ছিল।

‘সমাধিটি যত্ন সহকারে নির্মাণের জন্য ডিমগুলো ভালোভাবে সংরক্ষণ করা গেছে। যা স্থির তাপমাত্রা এবং আর্দ্রতার সাথে একটি আবদ্ধ স্থান তৈরি করেছিল,’ বলেন কিউরেটর।

এর আগে প্রত্নতাত্ত্বিকরা মার্চ মাসে পূর্ব চীনের জিয়াংসু প্রদেশের ২৫০০ বছরের পুরনো সমাধি থেকে ডিম ভরা একটি বয়াম আবিষ্কার করেন, যার মধ্যে একটি মাত্র ডিম ভাঙা ছিল।

২০১৫ সালে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের চীনের গুইঝৌ প্রদেশের প্রত্নতাত্ত্বিকেরা প্রায় ২০০০ বছরেরও বেশি সময় পূর্বের একটি সমাধি থেকে একটি ডিম পেয়েছিলেন, তবে গবেষকরা পরিষ্কার করার ব্রাশের ছোঁয়ায় শাঁসটি ফেটে যায়।

তাং বলেছেন, সদ্য পাওয়া ডিমের বয়ামটি অবলোহিত রশ্মি ব্যবহার করে ল্যাব বিশ্লেষণের জন্য সংরক্ষণ করা হয়েছে। এতে প্রত্যাশা করা হচ্ছে যে ডিমের সংখ্যা এবং অবস্থা ক্ষতিগ্রস্ত না করে যাচাই করা যাবে। ইউএনবি।