advertisement
আপনি দেখছেন

সাবেক প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাক সরকারের দুর্নীতি ঠেকাতে দুই বছর আগে আনোয়ার ইব্রাহিমের সমর্থন নিয়ে প্রধানমন্ত্রী হন ৯৪ বছর বয়সী মাহাথির মোহাম্মাদ। কথা ছিল তিনি পদত্যাগ করলে আনোয়ার হবেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু সেটা হয়নি।

anowar mahathir malasia

কিছু দিন আগে ক্ষমতাসীন জোট ছেড়ে নতুন জোট করার উদ্যোগ নেন বিশ্বে সবচেয়ে বয়সী প্রধানমন্ত্রী মাহাথির। তখনই বাধে বিপত্তি। এ নিয়ে গত কয়েক দিন ধরেই মালয়েশিয়ার রাজনীতিতে চলছে তোলপাড়।

এমনই প্রেক্ষাপটে প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে পদত্যাগ করেন ড. মাহাথির। কিন্তু দেশটির রাজা তাকে অন্তর্বর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দেন।

কিন্তু বেঁকে বসে নিজের প্রতিষ্ঠিত দল পার্টি প্রিবুমি বেরসাতু মালয়েশিয়া। তার থেকে সমর্থন তুলে নেয়। পদত্যাগপত্র গ্রহণ করে দলের পক্ষ থেকে মাহয়িদ্দিন ইয়াসিনকে প্রধানমন্ত্রী প্রার্থী করা হয়। অন্যদিকে, জোটের পক্ষ থেকে আনোয়ার ইব্রাহিমকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মনোনয়ন দেওয়া হয়।

কিন্তু অল্প সময়ের মধ্যে আবার পাল্টে গেছে দৃশ্যপট। সর্বশেষ খবরে বলা হচ্ছে, ফের আনোয়ার ইব্রাহিমের সমর্থন নিয়েই প্রধানমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন মাহাথির মোহাম্মদ।

আল জাজিরা বলছে, শেষ পর্যন্ত নিজের সব সময়ের ছায়া প্রতিদ্বন্দ্বী আনোয়ার ইব্রাহিমের সঙ্গে হাত মেলাতে বাধ্য হন মাহাথির। আর রাজনৈতিক পরিস্থিতি যতদূর সম্ভব নিজের অনুকূলে রাখতে আনোয়ার ইব্রাহিমও প্রার্থিতা তুলে নিয়ে ৯৪ বছর বয়সী এই নেতাকে সমর্থন দেন।

সদ্য ত্যাগ করে আসা পাকাতান হারাপান জোট থেকেই প্রধানমন্ত্রী হতে নিজের সম্মতির কথা জানিয়ে শনিবার মাহাথির বলেন, ‘প্রয়োজনীয় সংখ্যাগরিষ্ঠতা পাওয়ার বিষয়ে আমি আত্মবিশ্বাসী।’

অন্যদিকে, জোটের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘প্রধানমন্ত্রী পদে ড. মাহাথিরকে পূর্ণ সমর্থন দিচ্ছে পাকাতান হারাপান।’

আনোয়ার ইব্রাহিমও ওই বিব্রতি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করে বলেছেন, সরকারের মূলনীতি প্রতিষ্ঠায় প্রচেষ্টা অব্যাহত রাখবে তাদের জোট।

sheikh mujib 2020