advertisement
আপনি দেখছেন

নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণে দিশেহারা গোটা বিশ্ব। প্রতিদিনই বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। তবে প্রাণঘাতী এ ভাইরাসের ভয়াবহতা দেখা এখনো বাকি বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। ্

who head tedros adhanom ghebreyesusবিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) প্রধান ড. টেড্রস অ্যাডহানম গেব্রেইয়েসুস- ফাইল ছবি

গতকাল সোমবার অনলাইনে দেওয়া এক ব্রিফিংয়ে ডব্লিউএইচও'র প্রধান ড. টেড্রস অ্যাডহানম গেব্রেইয়েসুস বলেন, করোনাভাইরাসের আসল রূপ এখনো দেখা বাকি। সামনে আরো ভয়াবহ পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। প্রাণঘাতী এ ভাইরাস মোকাবেলায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সরকার এখনই সঠিক পদক্ষেপ না নিলে আরো অনেক বেশি মানুষ এতে সংক্রমিত হবে। তখন আরো ভয়াবহ পরিস্থিতির সৃষ্টি হবে।

ব্রিফিংয়ে করোনাভাইরাস মোকাবেলায় সফল দেশ হিসেবে জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া ও জার্মানির নাম উল্লেখ করে তিনি আরো বলেন, করোনা মোকাবেলায় এই তিনটি দেশের নীতি অনুসরণ করা যেতে পারে। বিশ্বের প্রতিটি দেশের সরকারকে এখনই কোভিড-১৯ মোকাবেলায় সঠিক পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।

corona virus newকরোনাভাইরাস- প্রতীকী ছবি

মহামারি আকারে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাস মোকাবেলায় বিশ্বের প্রতিটি দেশের সরকারকে এই তিন দেশের নীতি অনুসরণ করারও আহ্বান জানান ড. টেড্রস অ্যাডহানম গেব্রেইয়েসুস।

তিনি আরো বলেন, বিশ্বজুড়ে চলমান এ সংকটের অবসান হোক, প্রতিটি জীবন বাঁচুক- এটাই তাদের প্রত্যাশা। কিন্তু বাস্তবতা হলো, এই পরিস্থিতির অবসান এখনই হচ্ছে না। সামনে আরো ভয়াবহ পরিস্থিতির মুখে পড়তে যাচ্ছে গোটা মানবজাতি। বিশ্বের হাতে গোনা কয়েকটি দেশ করোনাভাইরাস মোকাবেলায় কিছুটা উন্নতি করেছে। এছাড়া অন্যান্য দেশে প্রাণঘাতী এ ভাইরাসের সংক্রমণ দ্রুতগতিতে ছড়িয়ে পড়ছে।

আন্তর্জাতিক জরিপ সংস্থা ওয়ার্ল্ডোমিটারের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বজুড়ে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ৪ লাখের বেশি মানুষ প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন। আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন ৫ লাখ ৮ হাজারের বেশি। চিকিৎসা শেষে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৫৬ লাখের বেশি।

sheikh mujib 2020