advertisement
আপনি দেখছেন

সেনাবাহিনীর জওয়ানদের জন্য ৭২ হাজার মার্কিন অ্যাসল্ট রাইফেল কিনতে যাচ্ছে ভারত। এ ছাড়া ৩৩টি রুশ যুদ্ধবিমান কেনার প্রস্তুতিও নিয়েছে দেশটি। ইতোমধ্যে ডিফেন্স অ্যাকুইজিশন কাউন্সিলের বৈঠকে বিষয়টি অনুমোদিত হয়েছে। পদাতিক বাহিনীর আধুনিকীকরণের লক্ষ্যেই এসব সরঞ্জাম কেনা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন ভারতীয় কর্মকর্তারা।

modi cheking assult rifleঅ্যাসল্ট রাইফেল হাতে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

প্রসঙ্গত, ভারত এমন সময় এসব অস্ত্র কিনতে যাচ্ছে যখন প্রতিবেশী চীনের সঙ্গে সীমান্তে উত্তেজনা বিরাজ করছে। এর বাইরে পুরনো পাকিস্তান ইস্যু ছাড়াও নতুন করে নেপাল ও ভুটান সীমান্তেও উত্তেজনা দেখা দিয়েছে।

স্থানীয় গণমাধ্যম বলছে, সাম্প্রতিক সংঘর্ষের পর পূর্ব লাদাখ সীমান্তে ভারত ও চীনা বাহিনীর মধ্যে উত্তেজনা রয়েছে। এমনই প্রেক্ষাপটে আমেরিকা থেকে বিপুল পরিমাণ অ্যাসল্ট রাইফেল কেনা হচ্ছে। এসব রাইফেল চীন সীমান্তে মোতায়েন থাকা সেনারা ব্যবহার করবে। গত ১৫ জুনের ওই সংঘর্ষে অন্তত ২০ ভারতীয় সেনা নিহত হয় বলে দাবি করা হয়।

russian made jetরাশিয়ার তৈরি যুদ্ধবিমান

এনডিটিভির প্রতিবেদন বলা হয়েছে, ভারতীয় সেনাবাহিনী পদাতিক বাহিনীর আধুনিকীকরণের লক্ষ্যে জোর কার্যক্রম চালাচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে সেনাদের ব্যবহৃত পুরানো ও অপ্রচলিত অস্ত্রের পরিবর্তে হালকা মেশিনগান, ওয়ারহেড কারবাইন এবং অ্যাসল্ট রাইফেল কেনা হচ্ছে।

সূত্রের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতীয় সেনাবাহিনীর জন্য প্রায় ৭ লাখ রাইফেল, হালকা মেশিনগান এবং কমপক্ষে ৪৪ হাজার ৬০০ কারবাইন ক্রয়ের প্রক্রিয়া ২০১৭ সালের অক্টোবরেই শুরু হয়েছে। চীন ও পাকিস্তান সীমান্তে সাম্প্রতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় সেই কার্যক্রম আরো দ্রুতগতিতে সম্পূর্ণ করার কাজ চলছে।

জানা যায়, গত ২ জুলাই ভারতীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংহের উপস্থিতিতে ডিফেন্স অ্যাকুইজিশন কাউন্সিলের বৈঠক হয়। সেখানে রাশিয়া দ্রুত ভিত্তিতে ৩৩টি মিগ-২৯ এবং সুখোই যুদ্ধবিমান ক্রয়ের অনুমোদন দেওয়া হয়। এর মধ্যে ১২টি সুখোই-৩০ এমকেআই মাল্টিরোল এয়ার সুপিরিওরিটি ফাইটার জেট এবং ২১টি মিগ-২৯ যুদ্ধবিমান।

sheikh mujib 2020