advertisement
আপনি দেখছেন

ক্রমবর্ধমান ইসলামোফোবিয়া (ইসলামভীতি) এবং জেনোফোবিয়া (বিদেশি, অচেনা কিছু বা লোকেরা ভয়) থামাতে বিশ্বকে পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানিয়েছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোয়ান। আজ বুধবার আন্তর্জাতিক হলোকাস্ট স্মরণ দিবস উপলক্ষ্যে এক ভিডিও বার্তায় তিনি এ আহ্বান জানান।

erdoan president turkeyতুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোয়ান

তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে ইন্টারনেট ও ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম ব্যবহারের মাধ্যমে ইসলামোফোবিয়া এবং জেনোফোবিয়া বহুগুণে বেড়ে গেছে। এ দুটো থামাতে বিশ্বকে পদক্ষেপ নিতে হবে।

হলোকাস্ট, বসনিয়া, রুয়ান্ডা এবং কম্বোডিয়ার মতো দুর্ঘটনা যাতে না ঘটে, সে জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের উচিত ব্যবস্থা নেয়া, যোগ করেন তিনি।

মানবজাতি একটি কঠিন সময় পার করছে উল্লেখ করে এরদোয়ান বলেন, বর্তমানে ক্রমবর্ধমান মহামারির পাশাপাশি ‘বর্ণবাদ ভাইরাস’ ব্যাপক আকার ধারণ করেছে। মসজিদ, উপাসনালয় এবং গীর্জার মতো পবিত্র স্থানেও সহিংসতার ঘটনা বৃদ্ধি পাচ্ছে।

‘বিভিন্ন জাতিগত পরিচয়, ধর্ম, ভাষা এবং উপস্থিতিগুলোর পাশাপাশি সমাজের কিছু অংশের বিরুদ্ধে ঘৃণিত অপরাধ দিন দিন বাড়ছে। বর্ণবাদী সন্ত্রাসবাদ এখন নিরাপত্তা হুমকিতে পরিণত হয়েছে। যা সামাজিক শান্তি বিনষ্ট করছে।’

তিনি বলেন, হলোকাস্ট, বসনিয়া, রুয়ান্ডা এবং কম্বোডিয়ায় গণহত্যার ফলে লক্ষ লক্ষ মানুষ প্রাণ হারিয়েছিল। সেখানে এ ঘটনার বহু আগে থেকেই বৈষম্য, প্রান্তিককরণ এবং ক্রমবর্ধমান ঘৃণ্য বক্তব্য ছড়িয়েছিল বলে প্রমাণ পাওয়া যায়।

এই সমস্ত গণহত্যা সব ধরণের বৈষম্যের বিরুদ্ধে লড়াই করতে এবং মানবতাবিরোধী অপরাধ রোধে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে মনে করিয়ে দেয়, যোগ করেন বিশ্বের অন্যতম প্রভাবশালী এই মুসলিম নেতা।

sheikh mujib 2020