advertisement
আপনি দেখছেন

সেনা অভ্যুত্থানের পর দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে ব্যাপক বিক্ষোভ চলছে মিয়ানমারে। গণতন্ত্রপন্থীদের এই প্রতিবাদ দমনে গুলি চালানোয় ছয় শতাদিক মানুষ নিহত হয়েছে এরইমধ্যে। এমতাবস্থায় ১৯ বিক্ষোভকারীকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে জান্তা সরকারের একটি আদালত।

protests in myanmar 4মিয়ানমারে বিক্ষোভ, ফাইল ছবি

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, দেশটির একজন ক্যাপ্টেনকে নির্যাতন এবং তার সহযোগীকে হত্যার অভিযোগে গতকাল শুক্রবার এমন রায় ঘোষণা করা হয়। এ সংক্রান্ত সংবাদ প্রচার করেছে সেনাবাহিনীর মালিকানাধীন মিওয়াদ্দি টেলিভিশন।

গত মাসে ইয়াঙ্গুনের উত্তর ওক্কালাপা জেলায় ওই ঘটনা ঘটার পর সামরিক আইন জারি করা হয় পুরো জেলায়। পরে সামরিক আদালত বসিয়ে আসামিদের বিচার করে জান্তা সরকার।

দণ্ডিত আসামিদের মধ্যে ১৭ জন পলাতক থাকায় তাদের ধরতে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে। সাজাপ্রাপ্তদের মধ্যে ১৭ বছরের এক কিশোরীও রয়েছে। অন্যান্য আসামিদের বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু বলা হয়নি খবরে।

protests in myanmarবিক্ষোভে নিরাপত্তা বাহিনীর হামলা, ফাইল ছবি

এদিকে, মিয়ানমারে শুক্রবার রাতে নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে কমপক্ষে ৬০ জন মানুষ নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে আলজাজিরা। ইয়াঙ্গুনের ৯১ কিলোমিটার দূরের বাগো শহরে রাতভর এই অভিযান চালানো হয়।

চলতি বছরের গত ১ ফেব্রুয়ারি অং সান সুচির সরকারকে উৎখাত করে ক্ষমতা দখল করে দেশটির সেনাবাহিনী। এরপর থেকে দেশজুড়ে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে, যা এখনো অব্যাহত রয়েছে। বিক্ষোভ দমনে শক্তি প্রয়োগের পথ পরিহার করতে জান্তা সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক বিশ্ব। কিন্তু তাতে এখন পর্যন্ত সাড়া মেলেনি।