advertisement
আপনি দেখছেন

লেবাননে হিজবুল্লাহর সমর্থনে শিয়া সম্প্রদায়ের লোকদের করা এক বিক্ষোভে মুহুর্মুহু গুলিতে কমপক্ষ ৬ জন নিহত হয়েছেন। এই ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো অন্তত ৩০ জন। আজ বৃহস্পতিবার দেশটির রাজধানী বৈরুতে এই ঘটনা ঘটে।

hezbollah supporters fired on protestersহিজবুল্লাহ সমর্থকদের বিক্ষোভে গুলি

আল জাজিরা জানায়, বিক্ষোভে ব্যাপক গোলাগুলির শব্দ শোনা গেছে। এলোপাতাড়ি গুলির কারণে অনেকেই গুরুতর আহত হওয়ায় নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে। তবে কে বা কারা হামলা করেছে, সেটি এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত লেবাননের রাজধানী বৈরুতের জাস্টিস প্যালেসের সামনে জড়ো হয়েছেন হিজবুল্লাহ সমর্থকরা। সেখানেই হামলার প্রতিবাদে বিক্ষোভ অব্যাহত রেখেছেন তারা। এ সময় বক্তব্য আর স্লোগানে হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছেন দেশটির শিয়া সম্প্রদায়ের লোকরা।

hezbollah supporters fired on protesters 1হিজবুল্লাহ সমর্থকদের বিক্ষোভে গুলি

জানা গেছে, গত বছরের বৈরুত বিস্ফোরণের তদন্তকাজ থেকে বিচারক তারেক বিতারকে অপসারণের দাবিতে আজ বিক্ষোভের ডাক দেয় হিজবুল্লাহ। তাদের আহ্বানে সাড়া দিয়ে কালো পোশাক পরে বিক্ষোভে যোগ দেন শত শত লেবানিজ। চলমান বিক্ষোভে আশপাশের ভবনগুলোর ছাদ থেকে গুলি ছোঁড়া হলে হতাহতের ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় সন্দেহভাজন এক হামলাকারীকে গ্রেপ্তারের দাবি করেছে লেবাননের সেনাবাহিনী। তবে তদন্তের স্বার্থে ওই ব্যক্তির নাম-পরিচয় এখনো প্রকাশ করা হয়নি বলে জানিয়েছে স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো।

উল্লেখ্য, গত বছরের ৪ আগস্ট লেবাননের রাজধানী বৈরুতে দুই দফায় ভয়াবহ বিস্ফোরণ ঘটে। তাতে ২০০ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু, হাজারো মানুষ আহত হয়। একই সঙ্গে অসংখ্য বাড়িঘর ধ্বংস ও ক্ষতিগ্রস্ত হয়।