advertisement
আপনি পড়ছেন

ওমিক্রনের সংক্রমণ ক্ষমতা ‘অস্বাভাবিক’ উল্লেখ করে যুক্তরাষ্ট্রের শীর্ষ সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ অ্যান্থনি ফাউসি বলেছেন, যেভাবে পরিস্থিতি এগোচ্ছে, তাতে মনে হচ্ছে করোনাভাইরাসের নতুন ধরন অমিক্রনে যুক্তরাষ্ট্রের সবাই আক্রান্ত হবে। সেন্টার ফর স্ট্র্যাটেজিক অ্যান্ড ইন্টারন্যাশনাল স্টাডিজের ভাইস প্রেসিডেন্ট জে স্টিফেন মরিসনের সঙ্গে আমেরিকার অমিক্রন পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলার সময় এমন মন্তব্য করেন ফাউসি। খবর সিএনএন।

anthony fauciঅ্যান্থনি ফাউসি

ফাউসি বলেন, অস্বাভাবিক সংক্রমণক্ষমতার কারণে হয়তো যুক্তরাষ্ট্রের সবার মধ্যে ছড়িয়ে পড়বে করোনা। এমনকি যারা টিকা নিয়েছেন, বুস্টার ডোজ নিয়েছেন, তারাও এর সংস্পর্শে আসতে পারেন। তাদের মধ্যে অনেকে আক্রান্ত হতে পারেন। তবে কিছু ব্যতিক্রম ছাড়া টিকা নেওয়া ব্যক্তিরা আক্রান্ত হলেও তাদের মধ্যে হাসপাতালে ভর্তি হওয়া কিংবা মারা যাওয়ার আশঙ্কা অনেক কম।

বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার পর অন্যান্য দেশের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্রও এর মোকাবেলায় ভ্যাকসিন আবিষ্কারে নামে। নিজেদের উৎপাদিত ভ্যাকসিনের পাশাপাশি অন্য দেশের উৎপাদিত ভ্যাকসিনও তারা কিনে নেয় অগ্রিম হিসেবে। এরপরও সেখানে করোনাভাইরাসের টিকাদান কর্মসূচি দেশটির সরকারের প্রত্যাশা অনুযায়ী এগোয়নি।

vaccination in usaভ্যাকসিন দেয়া হচ্ছে একজন ব্যক্তিকে, ফাইল ছবি

টিকা কর্মসূচি শুরুর পর বেশ কয়েকটি অঙ্গরাজ্যে সাপ্তাহিক পুরস্কারও ঘোষণা করা হয়েছিল। তারপরও দেখা যাচ্ছে, সাড়ে ছয় কোটি মানুষ এখনো টিকা নেননি। পরিসংখ্যান অনুযায়ী হিসেব করে দেখা গেছে, টিকা নিতে সক্ষম প্রতি পাঁচজনে একজন এখনো টিকা নেননি।

দেশটিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ দাবানলের মতো ছড়িয়ে পড়েছে। বিশ্বে এখন পর্যন্ত ৩১ কোটি ৭০ লাখ ৭৫ হাজারেরও বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে মারা গেছেন প্রায় ৫৫ লাখ ৩০ হাজার মানুষ। গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে, সংক্রমণ ও মৃত্যু এ উভয় দিক দিয়েই শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এ পর্যন্ত দেশটিতে সংক্রমিত হয়েছে ৬ কোটি ৪১ লাখ ৮২ হাজারের বেশি মানুষ, মারা গেছেস ৮ লাখ ৬৬ হাজার ৪৫৫ জন।