advertisement
আপনি পড়ছেন

ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মিরের উড়ি সেনাঘাঁটিতে গেরিলা হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে এক টুইট বার্তায় তিনি বলেছেন, 'ভয়াবহ এই হামলায় যারা জড়িত তাদের কেউই রেহাই পাবে না।'

narendra modi india

১৮ সেপ্টেম্বর রোববার ভোরে কাশ্মিরের রাজধানী শ্রীনগর থেকে প্রায় ১০০ কিলোমিটার দূরে ঐ ঘাঁটিতে বন্দুক ও গ্রেনেড নিয়ে হামলা চালায় সন্ত্রাসীরা। হামলায় অন্তত ১৭ সেনা নিহত ও ৩০ জন আহত হন। নিহত হয় চার হামলাকারীও। হামলার পর এক টুইট বার্তায় হুঁশিয়ারি দেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

সেই টুইট বার্তায় মোদি বলেন, 'জাতি হামলায় শহীদদের ত্যাগের কথা গভীর শ্রদ্ধাভরে স্মরণ রাখবে। সবাইকে আশ্বস্ত করে বলতে চাই, এই ঘৃণ্যতম হামলায় যারা জড়িত, তাদের কেউই রেহাই পাবে না।'

ভারতের অত্যন্ত জনপ্রিয় এই প্রধানমন্ত্রী নিহত সেনাদের শোকসন্তপ্ত পরিবারে প্রতি গভীর সমবেদনা জানিয়েছেন। তিনি আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনাও করেছেন। ভয়াবহ এই হামলার নিন্দা জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট প্রণব মুখার্জিও। তিনি হতাহতদের প্রতি শোক ও সমবেদনা জানিয়েছেন।

ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং হামলায় পাকিস্তান জড়িত বলে অভিযোগ করেছেন। তবে পাকিস্তান অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে। পাকিস্তানের পররাষ্ট্র দফতরের কর্মকর্তা নাফিস জাকারিয়া বলেছেন, 'কোনো ধরনের তদন্ত, তথ্য-প্রমাণ ছাড়া পাকিস্তানের দিকে যে অভিযোগের আঙুল তোলা হচ্ছে আমরা সেটা প্রত্যাখ্যান করছি।'

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ বলেন, হামলাকারী গেরিলারা প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত, আধুনিক অস্ত্রশস্ত্র চালনায় পারঙ্গম। তবে কাশ্মীরের মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি হামলার ঘটনাটিকে 'যুদ্ধসম' বলে মন্তব্য করেছেন। বিভিন্ন গণমাধ্যমগুলো বলছে, হামলার আশঙ্কায় পুরো কাশ্মীরে বিশেষ সতর্কতার জন্য 'রেড অ্যালার্ট' জারি করা হয়েছে।

আপনি আরো পড়তে পারেন

কাশ্মীরে ভারতীয় সামরিক ঘাঁটিতে হামলায় ১৭ সেনা নিহত

ইরানের দিকে তাক করা ইসরাইলের ২০০ পরমাণু বোমা

পাকিস্তানে জুমার নামাজে বোমা হামলা, নিহত ২৫

ইসলাম গ্রহণ করে হজ করলেন ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত

হিলারি সুস্থ, আজই ফিরতে পারেন প্রচারণায়