advertisement
আপনি পড়ছেন

পশ্চিম ঘানায় খনির বিস্ফোরক বহনকারী একটি ট্রাক বিস্ফোরণে শত শত ভবন ধ্বংস হয়ে গেছে। এ ঘটনায় কয়েক ডজন লোকের মৃত্যুর আশঙ্কা করা হচ্ছে। পশ্চিম আফ্রিকার দেশটির রাজধানী আক্রা থেকে ৩০০ কিলোমিটার পশ্চিমে বোগোসোর শহরের খনির কাছে অ্যাপিয়াতে এই দুর্ঘটনাটি ঘটে। ঘানার প্রেসিডেন্ট নানা আকুফো-আডো বলেছেন, এটা সত্যিই দুর্ভাগ্যজনক ও দুঃখজনক ঘটনা। বিস্ফোরণে জীবন ও সম্পদের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

ghanaবিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা

জানা গেছে, খনিজসমৃদ্ধ অঞ্চলে দুটি সোনার খনির মধ্যবর্তী স্থানে বিস্ফোরকভর্তি একটি ট্রাক মোটরসাইকেলকে ধাক্কা দেয়ার পর এমন বিস্ফোরণ ঘটে। হতাহতের সঠিক সংখ্যা জানা না গেলেও স্থানীয় প্রেস্টিয়া হুনি-ভ্যালি মিউনিসিপ্যাল গভর্নমেন্টের প্রধান আইজ্যাক দাসামানি বলেছেন, এখন পর্যন্ত তারা ১৭টি মৃতদেহ গণনা করেছেন। এছাড়া আহত অন্তত ৫৭ জনকে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। যাদের অনেকের অবস্থাই গুরুতর।

দেশটির জাতীয় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বিভাগের ডেপুটি ডিরেক্টর জেনারেল সেজি সাজি আমেদোনু জানান, বিস্ফোরণে পাঁচ শতাধিক ভবন ধ্বংস হয়ে গেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দুর্ঘটনার সাথে জড়িত একজন চালক মোটরসাইকেলটিতে আগুন ধরে যাওয়ার পর স্থানীয় বাসিন্দাদের পালিয়ে যেতে বলেছিলেন। এ সময় লোকজন ঘটনা বুঝার চেষ্টা করছিল। ড্রাইভার তখন চিৎকার করে বলছিল, লোকদের পালাতে হবে। এর ১০ মিনিটের মধ্যেই ট্রাকটি বিস্ফোরিত হয়। ওই সময় যারা ঘটনাস্থলের কাছে ছিল, তারাই বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

পুলিশের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, খনির বিস্ফোরক বোঝাই ট্রাক মোটরসাইকেলের সাথে ধাক্কা খেলে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এলাকাটি পুনরুদ্ধার কার্যক্রম চলছে। এ সময় জনসাধারণকে তাদের নিরাপত্তার জন্য এলাকা ছেড়ে কাছাকাছি শহরে চলে যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

স্থানীয় কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, আশেপাশের হাসপাতাল ও ক্লিনিকগুলো হতাহতদের ভীড়ে উপচে পড়েছে। এ অবস্থায় পুলিশ আশেপাশের গ্রামগুলোকে তাদের স্কুল ও গীর্জা খুলে দিতে বলেছে।

সূত্র: আল জাজিরা