advertisement
আপনি দেখছেন
সর্বশেষ আপডেট: 59 মিনিট আগে

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে হেগলি ওভাল মাঠের নিকটবর্তী কেন্দ্রীয় মসজিদে মুসল্লিদের ওপর হামলা চালিয়েছে একাধিক বন্দুকধারী। এতে এখন পর্যন্ত ২৭ জন নিহত হবার খবর পাওয়া গেছে। দেশটি সফরে থাকা বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়েরা ওই মসজিদে জুমার নামাজ আদায় করতে গেলেও সবাই নিরাপদে আছেন। শুক্রবার স্থানীয় সময় বেলা দেড়টায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

new zealand mosque attack tamim

দেশটির গণমাধ্যম বলছে, ডিনস এভে অবস্থিত মসজিদ আল নুর ও লিনউড এভের লিনউড মসজিদে বন্দুক হামলার ঘটনায় এখন পর্যন্ত ২৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। তবে নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

এ হামলার পরপরই এক সন্দেহভাজনকে গ্রেপ্তার করেছে নিউজিল্যান্ডের পুলিশ। তবে এ হামলার পেছনে আরো অপরাধীরা জড়িত থাকতে পারে বলে পুলিশের ধারণা।

এদিকে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে চলতি টেস্ট সিরিজের তৃতীয় ম্যাচ খেলতে দেশটি সফরে রয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের খেলোয়াড়রা। ভয়াবহ এ হামলার সময় তারা ক্রাইস্টচার্চেই অবস্থান করছিলেন। তবে বাংলাদেশ দল নিরাপদে আছেন বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ দলের ওপেনার তামিম ইকবাল।

তিনি এক টুইটে জানিয়েছেন, ‘পুরো দল বন্দুকধারীদের হাত থেকে বেঁচে গেছে। ভয়াবহ অভিজ্ঞতা। আমাদের জন্য দোয়া করবেন।’

এ ঘটনা নিয়ে নিউজিল্যান্ড-বাংলাদেশ সিরিজ কাভার করতে ক্রাইস্টচার্চে অবস্থান করা ক্রিকইনফোর বাংলাদেশ প্রতিনিধি মোহাম্মদ ইসামও একটি টুইট করেছেন। এতে তিনি বলেন, ‘হেগলি পার্কের কাছে মসজিদ থেকে বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড়রা পালিয়ে রক্ষা পেয়েছেন, যেখানে বন্দুকধারীরা হামলা চালিয়েছে।

প্রসঙ্গত, ক্রাইস্টচার্চের হেগলি ওভাল মাঠে শনিবার সফররত বাংলাদেশ ও নিউ জিল্যান্ডের তৃতীয় টেস্ট হওয়ার কথা রয়েছে।

এক প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয় সংবাদমাধ্যমকে জানান, ৩০/৪০ বছর বয়সী ওই হামলাকারীর গায়ের রং ফর্সা। তার গায়ে ইউনিফর্ম থাকলেও তাৎক্ষণিকভাবে যাজান যায়নি, সেটি কিসের ইউনিফর্ম। হামলার সময় ওই বন্দুকধারীর পায়ের কাছে অনেকগুলো ম্যাগজিন বাধা ছিল।

আরেকজন প্রত্যক্ষদর্শী জানান, হামলাকারীরা হামলার পর মসজিদের জানালার কাঁচ ভেঙে পালিয়ে যায়। অটোমেটিক রাইফেল দিয়ে এ হামলা চালানো হয়।

sheikh mujib 2020