advertisement
আপনি দেখছেন

কোনা ব্যাংক যদি বন্ধ আ অবসায়ন হয় তাহলে যে কোন আমানতের বিপরীতে আমানতকারীরা মাত্র ১ লাখ টাকা পাবেন এমন একটি খবর বাংলাদেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। তবে বিষয়টিকে গুজব বলে আখ্যা দিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র সিরাজুল ইসলাম। আজ বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংকের জাহাঙ্গীর আলম কনফারেন্স হলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন।

sirajul islam

প্রচারিত ওই খবরে বলা হয়েছিলো, কোনো ব্যাংক বন্ধ হয়ে গেলে আমানতকারীকে মোট ১৮০ দিনের মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক ১ লাখ টাকা দেয়া হবে। ব্যাংক বন্ধ হওয়ার ৯০ দিনের মধ্যে আবেদন করা যাবে এবং পরবর্তী ৯০ দিনের মধ্যে পাওনা টাকা বুঝিয়ে দেয়া হবে।

সিরাজুল ইসলাম বলেন, ওই খবর ভুয়া। গুজব ছড়ানোর জন্যে ওই তথ্য ব্যবহৃত হয়েছে। আসল কথা হচ্ছে , ২০১৯ সালের ১৯শে ডিসেম্বর পর্যন্ত আমানত বীমা ট্রাস্টে ৮ হাজার ৭৪৭ কোটি ৫৭ লাখ টাকা জমা হয়েছে। কোনো ব্যাংক যদি বন্ধ হয়ে যায় তাহলে আমানতকারীকে প্রথম তিন মাসে ১ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দেয়া হবে। ১ লাখ টাকা দিলেই ৯২ শতাংশ আমানতকারীর টাকা পরিশোধ হয়ে যাবে।

তিনি আরো বলেন, এই টাকার পরিমাণ ১ লাখ থেকে বাড়ানো হবে। বিষয়টি এখনো বাংলাদেশ ব্যাংকে প্রক্রিয়াধীন।

sheikh mujib 2020