advertisement
আপনি দেখছেন

সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়েছে কারাগারেও। কেরানীগঞ্জে অবস্থিত ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের ১০ কারারক্ষীর শরীরে করোনাভাইরাসের জীবাণু পাওয়া গেছে। ইতোমধ্যে তাদেরকে জিঞ্জিরা ২০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল, মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও মিরপুরের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন কেন্দ্রীয় কারাগারের জেলার মাহবুবুল ইসলাম।

central jail

আক্রান্ত কারারক্ষীদের কাজ ছিল অসুস্থ বন্দীদের হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করানো। আক্রান্তদের মাধ্যমে কারাগারের অভ্যন্তরে বন্দীদের শরীরে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়তে পারে, এমন আশঙ্কা কর্তৃপক্ষের। জেলার মাহবুব বলেন, আমরা সতর্ক আছি। যদি কারো উপসর্গ দেখা দেয় তাহলে সঙ্গে সঙ্গে নমুনা পরীক্ষার ব্যবস্থা করবো। আমাদের জানামতে, এই মুহূর্তে কোনো বন্দী করোনায় আক্রান্ত নয়। যারা ওই ১০ আক্রান্ত কারারক্ষীর সংস্পর্শে এসেছিলেন, তাদেরকে খুঁজে বের করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

সম্প্রতি কেন্দ্রীয় কারাগারের সাজাপ্রাপ্ত ৬০ বছর বয়সী এক আসামী কিডনি রোগে আক্রান্ত হয়ে ঢাকা মেডিকেলে ভর্তি হন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার করোনাভাইরাস ধরা পড়ে। তার মাধ্যমেই কারারক্ষীদের কারো শরীরে করোনার জীবাণু ছড়িয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। এভাবে একে একে আক্রান্ত হয়েছেন ১০ কারারক্ষী।

sheikh mujib 2020