advertisement
আপনি দেখছেন

মহামারি করোনাভাইরাস মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ভেন্টিলেটর ও মাস্কসহ বিভিন্ন মেডিকেল সরঞ্জামাদি দেবে তুরস্ক। সোমবার আঙ্কারায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠককালে এ আশ্বাস দিয়েছেন তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভাসুগলো।

turkey bd fmবাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন ও তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভাসুগলো (ডানে)

আজ মঙ্গলবার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য অফিসার মো. তৌহিদুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়েছে। সেখানে বলা হয়, চিকিৎসা সামগ্রী দেয়ার পাশাপাশি দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধির অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করেছেন তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বৈঠকে শিক্ষা বিনিময় ও সাংস্কৃতিক সম্পর্ক জোরদারসহ দুই দেশের মধ্যে যোগাযোগ বৃদ্ধির ওপর গুরুত্বারোপ করা হয়। এ সময় ঢাকা ও আঙ্কারার মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ককে আরো জোরদার করতে আলোচনা করেন দেশ দুটির শীর্ষ কূটনীতিকদ্বয়।

তারা আশা প্রকাশ করেন, তুরস্ক ও বাংলাদেশের মধ্যকার সম্পর্ক নতুন দিগন্তে উন্মোচিত হবে। পাশাপাশি শিগগিরই উভয় দেশের মধ্যে পরবর্তী এফওসি (ফরেইন অফিস কনসালটেশন) ও জেইসির (জয়েন্ট ইকোনোমিক কমিশন) বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তারা।

ventilator machineভেন্টিলেটর

বাংলাদেশের ভূয়সী প্রশংসা করে তুর্কি পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভাসুগলো বলেন, রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে মিয়ানমারে প্রত্যাবর্তনে তুরস্ক সব ধরনের সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে।

ফিলিস্তিনের অধিকার নিয়েও একাত্মতা পোষণ করেন এই দুই নেতা। এ সময় ফিলিস্তিনি জনগণের ন্যায়সঙ্গত অধিকারের পক্ষে বাংলাদেশের দৃঢ় অবস্থানের বিষয়টি তুলে ধরেন ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

চার দিনের সফরে গত ১৩ সেপ্টেম্বর তুরস্কের ইস্তাম্বুলে পৌঁছান বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। সেখানে পৌঁছানোর পর তাকে স্বাগত জানান ইস্তাম্বুলের ডেপুটি গভর্নর ইসমাইল সানলি।

sheikh mujib 2020