advertisement
আপনি দেখছেন

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ১৩ বা ১৪ মে বাংলাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপিত হবে। তবে ঈদের আগে তথা আগামী ৯ দিনের মধ্যে ৭ দিনই বন্ধ থাকছে ব্যাংক। অর্থাৎ খোলা থাকছে মাত্র ২ দিন।

bangladesh bank dhaka

এই অবস্থায় হঠাৎ করেই আজ বৃহস্পতিবার ব্যাংকগুলোতে ব্যাপক ভিড় পরিলক্ষিত হয়। এদিন এতটাই ভিড় ছিল যে, রীতিমতো ব্যাংক কর্মকর্তাদের হিমশিম খেতে হয়।

কয়েকটি ব্যাংকের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, সামনে ঈদ, আর ঈদের আগে ব্যাংক বেশি দিন খোলা থাকবে না। ফলে বৃহস্পতিবার গ্রাহকের ব্যাপক উপস্থিতি ছিল। গ্রাহকদের বেশির ভাগই এদিন নগদ টাকা তোলার জন্য ব্যাংকে আসেন বলেও জানান তারা।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্দেশনা থেকে জানা যায়, পবিত্র ঈদুল ফিতরের আগে আর মাত্র ২ দিন ব্যাংক খোলা থাকবে। সেই হিসাবে আগামী রোববার ও মঙ্গলবার দেশের ব্যাংকগুলোতে লেনদেন করা যাবে।

তবে আগামী ১৪ মে যদি ঈদ হয়, সেক্ষেত্রে বুধবারও (১৩ মে) শুধু পোশাক শিল্প ও রপ্তানি সংশ্লিষ্ট লেনদেন হয়— ব্যাংকের এমন সব শাখা খোলা রাখার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

crowed bank before eid

জানা যায়, আগামীকাল শুক্রবার (৭ মে ) থেকে আগামী ১৫ মে পর্যন্ত ৯ দিনের মধ্যে আগামী রোববার (৯ মে) ব্যাংক খোলা থাকবে। এর পরদিন সোমবার (১০ মে) পবিত্র শবে কদরের ছুটি। এর পর ঈদুল ফিতরের আগে আগামী মঙ্গলবার (১১ মে) খোলা থাকবে ব্যাংক। এ ছাড়া বাকি ৭ দিন ব্যাংকে লেনদেন বন্ধ।

অন্যদিকে, ঈদের আগে তৈরি পোশাক শিল্পের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা পরিশোধ এবং রপ্তানি বাণিজ্য অব্যাহত রাখার স্বার্থে আরেকটি নির্দেশনা দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। ওই নির্দেশনা অনুসারে ঢাকা মহানগরী, টঙ্গী, গাজীপুর, সাভার, আশুলিয়া, ভালুকা, নারায়ণগঞ্জ এবং চট্টগ্রামে অবস্থিত ব্যাংক শাখা ১০ মে এবং ১৪ মে ঈদ সাপেক্ষে ১৩ মে খোলা রাখতে বলা হয়েছে।