আপনি পড়ছেন

বিএনপির সমাবেশের দুই দিন আগে রাজশাহী বিভাগের আট জেলায় শুরু হয়েছে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট। ১ ডিসেম্বর, বৃহস্পতিবার সকাল থেকে এ পরিবহন ধর্মঘট ‍শুরু হয়। আগামী ৩ ডিসেম্বর রাজশাহীতে গণসমাবেশ করবে বিএনপি।

rajshahiপরিবহন ধর্মঘটের কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন যাত্রীরা

সড়ক পরিবহন আইন সংশোধন, মহাসড়কে অবৈধ যান চলাচল বন্ধ ও জ্বালানি তেলের দাম কমানোসহ ১০ দফা দাবিতে গত ২৬ নভেম্বর এ পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দিয়েছিলেন মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের সভাপতি সাফকাত মঞ্জুর বিপ্লব।

আজ ভোর থেকে রাজশাহী শহর থেকে কোনো বাস ছেড়ে যেতে বা ঢুকতে দেখা যায়নি।। পরিবহন ধর্মঘটের কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন যাত্রীরা।

জামিল উদ্দিন নামে চাঁপাইনবাবগঞ্জের এক যাত্রী বলেন, ‘আমি রাজশাহী যাবো। টার্মিনালে এসে জানতে পারি পরিবহন ধর্মঘট চলছে। এখন কি করবো জানি না। যে কোনো মূল্যে আমাকে রাজশাহী যেতে হবে।’

শরিফা খাতুন নামে অপর যাত্রী বলেন, ‘ধর্মঘটকে কাজে লাগিয়ে বেশি ভাড়া নিচ্ছে অটোরিকশা ও সিএনজিচালিত অটোরিকশা চালকরা। দ্বিগুণ ভাড়ায় গন্তব্যে যেতে হচ্ছে সবাইকে।’

একই সঙ্গে বিপাকে পড়েছেন বিএনপির সমাবেশে যোগ দিতে আসা নেতাকর্মীরাও। তবে অনেকে ভোগান্তি এড়াতে বুধবার রাতেই সমাবেশস্থল মাদ্রাসা মাঠে চলে এসেছেন।

পরিবহন ধর্মঘট ডাকায় ক্ষেভ জানিয়ে বিএনপি কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু বলেন, সরকারের চাপে এ ধর্মঘট ডাকা হয়েছে। তবে ধর্মঘটকে উপেক্ষা করেই নেতাকর্মীরা বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা থেকে আসবে। কোন বাধা গণসমাবেশকে আটকাতে পারবে না।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর