আপনি পড়ছেন

চীনের বিরুদ্ধে জাপানকে নিয়ে একটি সামরিক মহড়া করতে চাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। এনিয়ে দেশটি ইতোমধ্যে অস্ট্রেলিয়ার সাথে বৈঠক করেছে। গতকাল মঙ্গলবার ওয়াশিংটনে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়। এতে যুক্তরাষ্ট্র ও অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরক্ষা ও পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা অংশ নেন। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, একইরকম বৈঠক টোকিওতেও করা হবে। তিন দেশ মিলে একটি সামরিক ঐক্যফ্রন্ট গঠনের চিন্তা চলছে। খবর টিআরটি ওয়ার্ল্ড।

us and australia invite japan into three way troop rotationsচীনকে রুখতে একাট্রা যুক্তরাষ্ট্র অস্ট্রেলিয়া জাপান

অস্ট্রেলিয়ার মন্ত্রীরা জানান, ওয়াশিংটনে আলোচনার সময় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সাথে সামরিক মিথস্ক্রিয়া বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়েছে। এরপর চলতি সপ্তাহের শেষে তারা টোকিওতে যাবেন।

অস্ট্রেলিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী রিচার্ড মার্লেস বলেন, আমরা সামরিক ঐক্য গঠন করতে চাচ্ছি। আমরা অপেক্ষায় আছি, জাপানও এতে যুক্ত হবে। বিশ্বের বিভিন্ন অঞ্চলের দেশও এতে অংশ নিতে পারে। আঞ্চলিক সামরিক ভারসাম্য বজায় রাখতে আমাদের এই প্রয়াশ।

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন বলেন, আমরা অস্ট্রেলিয়ায় যৌথ মহড়ায় অংশ নেব। আশা করছি জাপান আমাদের সাথে যোগ দেবে। যুক্তরাষ্ট্র ২০১১ সাল থেকে এই মহড়া চলে আসছে। মহড়ায় অস্ট্রেলিয়ার বোমারু টাস্ক ফোর্স, যুদ্ধবিমান এবং যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনী ও নৌবাহিনীর সদস্যরা অংশ নেবে।

রয়টার্সের খবরে বলা হচ্ছে, যুক্তরাষ্ট্র উত্তর অস্ট্রেলিয়ার একটি বিমান ঘাঁটিতে ছয়টি পারমাণবিক বি-৫২ বোমারু বিমান মোতায়েন করার পরিকল্পনা করছে। তবে জাপান দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর থেকে শান্তিবাদী অবস্থানে রয়েছে। দেশটি মার্কিন প্রস্তাবে সাড়া দেবে কিনা তা স্পষ্ট নয়। অন্যদিকে জাপান সম্প্রতি প্রতিরক্ষা ব্যয় বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে।

অস্টিন বলেন, আমরা ত্রিপক্ষীয় সামরিক সহযোগিতা বাড়াতে কাজ করছি। সমগ্র ইন্দো-প্যাসিফিকে এখন চীনের বিপজ্জনক ও জবরদস্তিমূলক পদক্ষেপ দৃশ্যমান। তাইওয়ানের চারপাশেও তারা অস্থিরতা সৃষ্টি করছে। ফলে দক্ষিণ-পূর্ব চীন সাগর ও এই অঞ্চলে শান্তি বিঘ্নিত হচ্ছে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, ভারত, জাপান ও অস্ট্রেলিয়া কোয়াড জোটের সদস্য। তারা সাম্প্রতিক বছরগুলোতে একসঙ্গে কাজ করেছে। তবে জাপান প্রথম থেকেই চীনের বিরুদ্ধে সামরিক জোট গঠনের ব্যাপারে অনাগ্রহ প্রকাশ করেছে।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর