advertisement
আপনি দেখছেন

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সরকারের বিরুদ্ধে মামলা করেছে চীনের প্রযুক্তি বিষয়ক জায়ান্ট প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে। দেশটি মূলত তাদের বিভিন্ন এজেন্সিকে হুয়াওয়ের পণ্য ব্যবহারে নিষেধাজ্ঞা দেয়ার পাল্টা ব্যবস্থা হিসেবে টেক্সাসের ফেডারেল কোর্টে মামলা করেছে। বিশ্বব্যাপী এটি এখন বেশ আলোচিত বিষয়।

huawei com logo

মামলার নথিতে বলা হয়েছে, ঠিক যে কারণকে ইস্যু করে যুক্তরাষ্ট্র নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে তার স্বপক্ষে কোনো প্রমাণ দিতে পারেনি দেশটি। পাশাপাশি চীন সরকারের সঙ্গে প্রতিষ্ঠানটির যোগসূত্র থাকার অভিযোগও অস্বীকার করা হয়েছে। জানা যায়, জাতীয় নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগের কারণেই হুয়াওয়ের পণ্য ব্যবহারে নিধিনিষেধ দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

হুয়াওয়ে হচ্ছে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম টেলিযোগাযোগ সরঞ্জাম ও সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান। আমেরিকার অভিযোগ, বিভ্ন্নি টেলিযোগাযোগ পণ্যের মাধ্যমে বিশ্বব্যাপী গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি বা রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে গোয়েন্দাভিত্তিক সহায়তা করছে। যুক্তরাষ্ট্র বলছে, হুয়াওয়ে মূলত চীন সরকারকে সহায়তা করছে। তবে হুয়াওয়ে এসব অভিযোগ অস্বীকার করে আসছে।

বিগত কয়েক মাস ধরে যুক্তরাষ্ট্রের এমন অভিযোগের পর হুয়াওয়ে বড় ধরনের চ্যালেঞ্জ জানিয়ে মামলাটি করলো। প্রতিষ্ঠানটির রোটেটিং চেয়ারম্যান গুও পিং জানান, ঠিক কী কারণে হুয়াওয়ের পণ্য বর্জনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সেটা প্রমাণ করতে ব্যর্থ হয়েছে মার্কিন কংগ্রেস। যেকোনো অভিযোগ চাপিয়ে দিলেইতো হলো না। আমরা বরাবরই বিষয়টি অস্বীকার করে আসছি। শেষ এবং উপযুক্ত ব্যবস্থা হিসেবে আদালতে স্মরণাপন্ন হয়েছি।

sheikh mujib 2020